May 23, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Wednesday, February 23rd, 2022, 7:41 pm

অবশেষে স্বপ্ন পূরণ হচ্ছে আলিয়ার

অনলাইন ডেস্ক :

ছোটবেলা থেকেই অভিনয়ের স্বপ্ন আলিয়া ভাটের। সঞ্জয়লীলা বানশালির সঙ্গে কাজের স্বপ্ন দেখতেন তখন থেকেই। ২০০৫ সালে পরিচালকের ছবি ‘ব্ল্যাক’-এর জন্য অডিশনও দিয়েছিলেন! আলিয়ার বয়স তখন মোটে ৯। ‘গাঙ্গুবাঈ কাথিওয়াড়ি’র প্রচারে ঘটনাটি সম্পর্কে আলিয়া বলেন, ‘‘অভিনয়ে আসার আগে থেকেই উনি আমার বড় প্রেরণা (পাশে বসা বানশালিকে দেখিয়ে)। আমার যখন ৯ বছর বয়স, তখনই ওনার পরিচালনায় কাজ করতে চেয়েছিলাম। তখন অডিশন দিতে ওনার বাড়িতেও গিয়েছিলাম। কিন্তু ‘ব্ল্যাক’-এর জন্য দেওয়া অডিশনে আমি বাজে পারফর্ম করি। ’’ তবে অডিশনে ফেল করলেও ভবিষ্যতে আলিয়া যে বড় অভিনেত্রী হয়ে উঠবেন পরিচালক বানশালি সেটা তখনই অনুমান করেছিলেন। ‘তিনি আমার চোখের দিকে তাকিয়ে বলেন, ও একদিন বড় অভিনেত্রী হবে। ৯ বছর বয়সেই তিনি আমার চোখে আগুন দেখেছিলেন।’ বলেন আলিয়া। ২০১২ সালে অভিনয়ে অভিষেক হলেও প্রিয় পরিচালকের সঙ্গে কাজ করতে করতে ১০ বছর লেগে গেল আলিয়ার। যদিও এটা হতে পারত আগেই। ২০১৯ সালে সালমান খানের সঙ্গে বানশালির ‘ইনশাআল্লাহ’ ছবিতে অভিনয়ের কথা ছিল তাঁর। সেই ছবি স্থগিত হওয়ায় আলিয়া-বানশালি জুটি দেখার অপেক্ষা আরো বাড়িয়ে দেয়। কভিডের কারণে বারবার পিছিয়ে শেষ পর্যন্ত ‘গাঙ্গুবাঈ’ মুক্তি পাচ্ছে, যা নিয়ে ভীষণ রোমাঞ্চিত অভিনেত্রী। ২৫ ফেব্রুয়ারি মুক্তির আগে সোমবার আলিয়া ছবির প্রচারে হাজির হন কলকাতায়। ঢাকাই শাড়ি, কানের দুলে অভিনেত্রী হাজির হয়েছিলেন বাঙালি অবতারে। সূত্র : ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস।