September 30, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Monday, January 24th, 2022, 7:58 pm

আলাভেসের মাঠে স্বস্তির জয় পেল বার্সা

অনলাইন ডেস্ক :

আগের ম্যাচের তুলনায় বার্সেলোনার পারফরম্যান্সে উন্নতির দেখা মিলল না একটুও। তবে শেষ দিকে গিয়ে মূল্যবান একটি গোল আদায় করে নিল তারা। আলাভেসকে হারিয়ে আবারও জয়ের পথে ফিরল শাভি এরনান্দেসের দল। প্রতিপক্ষের মাঠে রোববার রাতে লা লিগায় বার্সেলোনার ঝাম ঝরানো জয়টি ১-০ ব্যবধানে। গোলটি করেন ফ্রেংকি ডি ইয়ং। তিন ম্যাচ পর জয়ের দেখা পেল কাতালান ক্লাবটি। লা লিগায় গ্রানাদার বিপক্ষে ড্র করার পর স্প্যানিশ সুপার কাপের সেমি-ফাইনালে রিয়াল মাদ্রিদের বিপক্ষে তারা হেরেছিল ৩-২ গোলে। আর গত বৃহস্পতিবার আথলেতিক বিলবাওয়ের বিপক্ষে অতিরিক্ত সময়ে গড়ানো ম্যাচে ৩-২ গোলে হেরে কোপা দেল রের শেষ ষোলো থেকে বিদায় নেয় কাতালান দলটি। বার্সেলোনার প্রায় সব ম্যাচেই একটা চিত্রে তেমন কোনো পরিবর্তন আসে না; বল দখলে সবসময়ই আধিপত্য থাকে দলটির। এদিনও তাই দেখা যায়। পুরো ম্যাচেই ৭৫ শতাংশের বেশি সময় বল ছিল তাদের পায়ে, কিন্তু আক্রমণে ছিল না কোনো ধার। প্রথমার্ধে কেবল দুটি হাফ-চান্স পায় তারা, কিন্তু প্রতিপক্ষ গোলরক্ষককে তেমন ভাবাতেও পারেননি জেরার্দ পিকে ও লুক ডি ইয়ং। বিরতির ঠিক আগে এই অর্ধের সেরা সুযোগটি পায় আলাভেস। তবে প্রতি-আক্রমণে গোলরক্ষককে একা পেয়েও তার সোজাসুজি শট নিয়ে বসেন পেরে পন্স। দ্বিতীয়ার্ধেও একইভাবে চলতে থাকা ম্যাচের ৬৩তম মিনিটে সুযোগ আসে বার্সেলোনার সামনে। তবে পেদ্রির ফ্রি কিকে গোলমুখে বল পেয়ে ঠিকমতো শট নিতে পারেননি লুক ডি ইয়ং। গোলরক্ষকের হাত থেকে ছুটে যাওয়া বলে প্রয়োজনীয় টোকা দিতে পারেননি আগেই পড়ে যাওয়া পিকেও। প্রতি-আক্রমণ নির্ভর ফুটবল খেলা আলাভেস ৭৮তম মিনিটে আরেকটি ভালো সুযোগ হারায়। সাদামাটা ফুটবলের মাঝে ৮৭তম মিনিটে বার্সেলোনা উদযাপনের উপলক্ষ পায়। বাঁ দিক থেকে জর্দি আলবার ডি-বক্সে বাড়ানো দারুণ ক্রসে অফসাইডের ফাঁদ ভেঙে তরেস বল ধরে ফাঁকায় ফ্রেংকি ডি ইয়ংকে পাস দেন। অনায়াসে বাকি কাজ সারেন ডাচ মিডফিল্ডার। আলাভেসের পক্ষ থেকে জোরাল অফসাইডের দাবি উঠলেও ভিএআরে টিকে যায় গোল। ব্যবধান ধরে রেখে স্বস্তির জয়ে মাঠ ছাড়ে পালাবদলের মধ্য দিয়ে যাওয়া বার্সেলোনা। ২১ ম্যাচে ৯ জয় ও ৮ ড্রয়ে পাঁচ নম্বরে থাকা বার্সেলোনার পয়েন্ট ৩৫। সমান ম্যাচে ১ পয়েন্ট বেশি নিয়ে চতুর্থ স্থানে আতলেতিকো মাদ্রিদ। দিনের অন্য ম্যাচে এলচের সঙ্গে ২-২ ড্র করা রিয়াল মাদ্রিদ ২২ ম্যাচে ৫০ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে আছে। সমান ম্যাচে ৪ পয়েন্ট কম নিয়ে দুইয়ে সেভিয়া। তিন নম্বরে রিয়াল বেতিসের পয়েন্ট ৪০।