July 15, 2024

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Monday, December 18th, 2023, 8:19 pm

ইসরায়েলে পা রেখেছেন মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী

অনলাইন ডেস্ক :

ইসরায়েলে পা রেখেছেন মার্কিন প্রতিরক্ষামন্ত্রী লয়েড অস্টিন। এই সফরে তিনি গাজায় অভিযানের বিষয়ে ইসরায়েলি সরকারের সঙ্গে আলোচনা করবেন বলে জানা গেছে। স্থানীয় সময় সোমবার (১৮ ডিসেম্বর) তিনি ইসরায়েলে পৌঁছেছেন বলে রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে জানানো হয়। অস্টিনের জন্য মূলত এই সফর ভারসাম্য রক্ষার সফর। গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলের সীমান্তে প্রবেশ করে হামলা চালায় স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাস। এর প্রতিশোধ হিসেবে গাজায় পাল্টা আক্রমণ চালায় ইসরায়েল। তারপর থেকে এখন পর্যন্ত গাজায় হামলা অব্যাহত রয়েছে। এদিকে গত ৭ অক্টোবর সংঘাত শুরুর পর থেকেই ইসরায়েলকে সমর্থন দিয়ে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র। একই সঙ্গে গাজার বেসামরিক হতাহতের বিষয়েও উদ্বেগ জানিয়ে আসছে দেশটি।

অস্টিনের সঙ্গে সফররত এক শীর্ষ মার্কিন প্রতিরক্ষা কর্মকর্তা সাংবাদিকদের বলেন, যুদ্ধের পরবর্তী পর্যায় নিয়ে ইসরায়েল কী পরিকল্পনা করছে সে বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী বেঞ্জামিন নেতানিয়াহু এবং প্রতিরক্ষামন্ত্রী ইয়োভ গ্যালান্টসহ ইসরায়েলের শীর্ষ নেতাদের সঙ্গে আলোচনা করবেন অস্টিন। এদিকে অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকার জাবালিয়া শরণার্থী শিবিরে ইসরায়েলের বিমান হামলায় কমপক্ষে ৯০ জন নিহত হয়েছে। গাজার স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন বলে আল জাজিরার এক প্রতিবেদনে জানানো হয়। দক্ষিণ গাজার নাসের হাসপাতালের প্রসূতি ওয়ার্ডে ইসরায়েলি হামলায় অন্তত এক শিশু নিহত ও তিনজন আহত হয়েছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (ডব্লিউএইচও) প্রধান তেদ্রস আধানম গেব্রেয়েসুস বলেন, তিনি উত্তর গাজার কামাল আদওয়ান হাসপাতালে হামলার কারণে শঙ্কিত। অপরদিকে ইসরায়েলি বাহিনীর বিমান হামলায় হানেন আলি আল কাতশান নামের এক নারী সাংবাদিক নিহত হয়েছেন। ফিলিস্তিনি গণমাধ্যম জানিয়েছে, গত ৭ অক্টোবর থেকে শুরু হওয়া সংঘাতে এ পর্যন্ত ৯৫ জন ফিলিস্তিনি সাংবাদিক নিহত হয়েছেন। সামাজিক মাধ্যমে ফিলিস্তিনি গণমাধ্যমের পক্ষ থেকে আল কাতশানের ছবি প্রকাশ করা হয়েছে। ওই ছবি থেকে জানা যাচ্ছে যে, তিনি গাজার একটি রেডিও স্টেশনে দায়িত্ব পালন করছিলেন। এর আগে এক প্রতিবেদনে জানা গেছে যে, নুসেইরাত শরণার্থী শিবিরে হামলার ঘটনায় নিহত ২৫ জনের মধ্যে আল কাতশানও ছিলেন। তার পরিবারের আরও কয়েকজন সদস্যও নিহত হয়েছে বলে জানা গেছে।