May 23, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Friday, April 15th, 2022, 8:55 pm

ঈশ্বরগঞ্জে ক্রয় সামর্থ্যহীনদের জন্য বিনে পয়সার হাট

সাইফুল ইসলাম তালুকদার, ময়মনসিংহ :

ক্রয় সামর্থ্যহীন রোজাদারদের জন্য মুক্তির বন্ধন ফাউন্ডেশন ময়মনসিংহ সদর ও ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলায় বসিয়েছে বিনে পয়সার হাট। এ হাট থেকে সুবিধাভোগীরা বিনামূল্যে পাচ্ছেন খাদ্য সামগ্রী। বৃহস্পতিবার ঈশ্বরগঞ্জ উপজেলার আঠারবাড়ী ইউনিয়নের উত্তর বনগাঁও এলাকার ইরা ফিলিং স্টেশন চত্বর ও ময়মনসিংহের কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের জামতলায় এ বিনামূল্যের হাট বসানো হয়। এ সংগঠনটি রোজার প্রথম দিনে প্রায় চারশ দুস্থ্য অসহায় মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছিল। দ্বিতীয় পর্যায়ের এ হাটে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ কর্মসূচীর বিস্তৃতি লাভ করেছে। দাতাগোষ্ঠীর ব্যাপক সাড়া পাওয়ায় এবারের হাটে ১ হাজার ৩শ মানুষের মাঝে বিনামূল্যে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়।

খাদ্য সামগ্রীর মাঝে রয়েছে চাল ২০কেজি, আটা ২কেজি, লবন ১কেজি, সেমাই ২প্যাকেট, চিনি ৩কেজি, সাবান ২টা, গুড়া দুধ ১প্যাকেট, তেল ২লিটার, ছোলা বুট ২কেজি, চিড়া ২কেজি, ডাল ২কেজি, পোলাও চাল ১কেজি, গুড়া মসলা ৮শ গ্রাম।

মুক্তির বন্ধন ফাউন্ডেশনের সমন্বয়কারী আজহারুল ইসলাম পলাশ জানান, দ্বিতীয় পর্যায়ে ময়মনসিংহের কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের জামতলা ও আমাদের ইরা ফিলিং স্টেশনে একযুগে স্থানীয় দানশীল ব্যক্তিবর্গ ও দেশের বিভিন্ন দাতা গোষ্ঠীর অর্থায়নে ক্রয় সামর্থ্যহীনদের মাঝে এসব খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হচ্ছে। এ হাটে থেকে প্রত্যেক সুবিধাভোগী পাচ্ছেন ৩ হাজার ৬শ ৬০ টাকার খাদ্য সামগ্রী।

দিঘালিয়া গ্রামের আব্দুল কুদ্দুস (৫৫) জানান, এ খাদ্য সামগ্রী পেয়ে আমি খুব খুশি। ঈদের আগে রমজানে বিনামূল্যে যেসব মালামাল পেয়েছি তা আমার পক্ষে কেনা সম্ভব ছিল না। বনগাঁওয়ের রহিমা খাতুন বলেন, বিনা পয়সায় এত মাল পাব চিন্তাও করিনি। যে খাদ্য পেয়েছি তা দিয়ে আমার রমজান এবং ঈদ চলে যাবে।

দ্বিতীয় দিনের এ হাটের উদ্বোধন কালে উপস্থিত ছিলেন ঈশ্বরগঞ্জ মুক্তিযোদ্ধা কমান্ড কাউন্সিলের ডেপুটি কমান্ডার বীরমুক্তিযোদ্ধা তোফাজ্জল হোসেন ভূইয়া, ইউপি চেয়ারম্যান জুবের আলম কবীর রুপক, আঠারবাড়ি তদন্ত কেন্দ্রের ইনচার্জ রফিকুল ইসলাম প্রমুখ।

এবারের বিনামূল্যের হাট পরিচালনায় স্বেচ্ছাসেবক হিসেবে শতাধিক কিশোর কিশোরী নিরলসভাবে দায়িত্ব পালন করে যাচ্ছেন।

স্বেচ্ছসেবক রীতা আক্তার পাপিয়া, শাহনাজ পারভিন নাবিলা, রিয়া আক্তার, ভাবনা, শাহাদাত হোসেন আকাশ, আব্দুস সামাদ জুম্মন, নিলয় খান, শাহরিয়ার খান ইমন জানান অসহায় মানুষদের মাঝে এ খাদ্য সামগ্রী তুলে দিতে পেরে আমরা গর্ববোধ করছি। দিনদিন দাতাদের সহযোগিতা বৃদ্ধি পাচ্ছে । এধারা যেন অব্যহত থাকে এ জন্য তারা দেশের বিত্তবানদের সহযোগিতার হাত সম্প্রসারণের দাবি জানান।