August 17, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Tuesday, December 14th, 2021, 9:03 pm

ওমিক্রনে আক্রান্ত দুই নারী ক্রিকেটার হাসপাতালে ভর্তি

ফাইল ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদক:

করোনার নতুন ধরন ওমিক্রনে আক্রান্ত দুই নারী ক্রিকেটারকে মুগদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গত সোমবার বিকাল সাড়ে ৪টায় তাদের ভর্তি করা হয় বলে জানিয়েছেন হাসপাতালের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক ডা. মো. নিয়াতুজ্জামান। এই দুই জনের পাশাপাশি ক্রিকেট দলের আরেকজন পুরুষ সদস্যকেও হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তিনি ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট দিয়ে আক্রান্ত। তবে তারা সবাই ভালো আছেন এবং সুস্থ আছেন। তাদের মধ্যে একজনের কেবল কাঁশি রয়েছে, তাও সামান্য বলে জানিয়েছে হাসপাতাল সূত্র। প্রসঙ্গত, গত ১১ ডিসেম্বর বাংলাদেশ নারী ক্রিকেট দলের দুই জন সদস্য করোনা ভাইরাসের নতুন ভ্যারিয়েন্ট ওমিক্রনে শনাক্ত হয়েছেন বলে জানান স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক। এই ক্রিকেট দলের সদস্যরা জিম্বাবুয়ে সফর শেষে দেশে ফেরেন। স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, জিম্বাবুয়ে থেকে আসা আমাদের দুই নারী ক্রিকেটার, যাদের শরীরে ওমিক্রন ভাইরাস পাওয়া গেছে। তাদের আমরা কোয়ারেন্টিনে রেখেছি এবং তারা সুস্থ আছেন। তাদের যা যা চিকিৎসা দরকার সেগুলোর ব্যবস্থা করা হয়েছে। মাঝে মাঝেই পরীক্ষা করে দেখা হচ্ছে, কী অবস্থায় আছেন। পুরোপুরি সেরে উঠতে হয়তো কিছুদিন সময় লাগবে। অন্তত দুই সপ্তাহ লাগবে। পুরোপুরি যখন সেরে উঠবে, তখনই আমরা তাদের ছাড়তে পারবো। দুই নারী ক্রিকেটারের একজনের বয়স ২১ এবং আরেকজনের নবয়স ৩০ বছর। গত ৬ ডিসেম্বর তাদের নমুনা সংগ্রহ করা হয়। এ বিষয়ে মুগদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক ডা. মো. নিয়াতুজ্জামান বলেন, গত সোমবার বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে তাদের তিন জনকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তারা কেমন আছেন জানতে চাইলে তিনি বলেন, তিন জনই ভালো আছেন, সুস্থ আছেন। ২ জন নারী ক্রিকেটারের সঙ্গে আরেকজন পুরুষ সদস্য ভর্তি হয়েছেন। তিন জনই সুস্থ হলে কেন তাদেরকে হাসপাতালে ভর্তি করা হলোÑ প্রশ্নে তিনি বলেন, আসলে এটাতো নতুন ভ্যারিয়েন্ট। তাদেরকে পর্যবেক্ষণের জন্য ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। কিন্তু তাদের কারোরই কোনও উপসর্গ নেই, এটা হচ্ছে হাসপাতালের কনসালটেন্টদের মতামত। তারা ভালো আছেন। যেহেতু এই ভ্যারিয়েন্ট আমাদের দেশে নতুন, তাই তাদেরকে দেখার জন্য এখানে ভর্তি করা হয়েছে, আর কিছু না, বলেন তিনি। দুই নারীর বাইরে যিনি ভর্তি হয়েছেন, তিনিও কি ওমিক্রনে আক্রান্ত, প্রশ্নে ডা. নিয়াতুজ্জামান বলেন, তিনি ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট দিয়ে আক্রান্ত।