May 26, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Thursday, March 3rd, 2022, 8:25 pm

কোম্পানীগঞ্জে গাড়ী ভাংচুর প্রতিবাদে দুধমুখায় সড়ক অবরোধ

জেলা প্রতিনিধি, ফেনী :
নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার বসুরহাট বাস টার্মিনালে ডিবি ড্রিম লাইন গাড়ী ভাংচুরের প্রতিবাদে দাগনভূঞা উপজেলার দুধমুখায় সড়ক অবরোধ ও স্টার লাইন পরিবহনের অধিন ড্রিম লাইন স্পেশালের একটি গাড়ী ভাংচুর করে। বৃহস্পতিবার বিকেলে এঘটনা ঘটে।
স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বসুরহাট বাস টার্মিনালে যাত্রী ডাকাকে কেন্দ্র করে ডি.বি ড্রিম লাইন পরিবহনের শ্রমিক লোকমান ও শাখাওয়াতের সাথে স্টার লাইন পরিবহনের অধিনস্থ ড্রিম লাইন স্পেশাল পরিবহনের শ্রমিক স্বপন ও মহিনের বাকবিতন্ডা ঘটে। মহিন একপর্যায়ে সাখাওয়াতকে মারধর শুরু করলে উভয় পক্ষের মধ্যে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এতে সাখাওয়াত, লোকমান, রাব্বি ও শাওন নামে ৪ শ্রমিক আহত হয়। এসময় স্ট্যান্ডে থাকা ডি.বি ড্রিম লাইনের একটি গাড়িতে ভাংচুর করে বলে জানান স্থানীয়রা। এঘটনায় দাগনভূঞা উপজেলার দুধমুখা বাজারে সড়ক অবরোধ করে ডি.বি ড্রিম লাইনের শ্রমিকরা। এসময় উত্তেজিত শ্রমিকরা স্টার লাইনের ড্রিম লাইন স্পেশালের একটি গাড়ী ভাংচুর করে যার নং ঢাকা মেট্টো -ব ১৪-৫৩৪৪। এবং তাদের দুধমুখা কাউন্টারেও হামলা করে। প্রায় ২০ মিনিট সড়ক অবরোধ করে রাখে শ্রমিকরা। খবর পেয়ে দাগনভূঞা থানার অফিসার ইনচার্জ মো. হাসান ইমামের নেতৃত্বে একদল পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে অবরোধকারীদের ধাওয়া করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। এবং গাড়ী চলাচল স্বাভাবিক করেন।
ড্রিম লাইন স্পেশাল দুধমুখা কাউন্টারের পরিচালক নুরের চাপা পলাশ জানান, অতর্কিতভাবে ডি.বি ড্রিম লাইনের কিছু শ্রমিক এসে হামলা করে আমাদের কাউন্টার ও একটি গাড়ি ভাংচুর করে।
বসুরহাট বাস মালিক সমিতির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল ইসলাম জানান, স্টার লাইনের পরিবহন ড্রিম লাইন স্পেশালের স্বপন ও মহিন আমাদের ডি.বি ড্রিম লাইনের শ্রমিকদের উপর হামলা করে। এতে আমাদের ৪/৫ জন শ্রমিক আহত হয়েছে। এসময় স্ট্যান্ডে থাকা আমাদের একটি গাড়ী ভাংচুর করে তারা।
কোম্পানীগঞ্জ থানার ওসি সাজ্জাদ রুমন জানান, কোম্পানীগঞ্জে কোন অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাইনি। এখানকার পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে।
দাগনভূঞা থানার ওসি মো. হাসান ইমাম জানান, সড়ক অবরোধের খবর পাওয়া মাত্র ঘটনাস্থলে পৌঁছে অবরোধকারীদের ধাওয়া করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনা হয়। বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। একটি গাড়ী ভাংচুর করা হয়েছে তা থানায় নিয়ে আসি। এ বিষয়ে কেও অভিযোগ করলে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।