February 22, 2024

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Sunday, March 5th, 2023, 3:50 pm

গোয়ালন্দে তিন দিনব্যাপী নাট্য উৎসব শুরু

রাজবাড়ীর গোয়ালন্দে তিন দিনব্যাপী নাট্য উৎসব শুরু হয়েছে।

শনিবার রাত ১০টায় অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি রাজবাড়ী-১ আসনের সংসদ সদস্য কাজী কেরামত আলী উদ্বোধন শেষে নিজে গান পরিবেশন করে সবাইকে মুগ্ধ করেন।

গোয়ালন্দ পৌর শহীদ মুক্তিযোদ্ধা ফকীর মহিউদ্দিন আনছার ক্লাব চত্বরে উদ্বোধনী পর্ব শেষে মঞ্চস্থ হয় শ্রী রঞ্জন দেবনাথ রচিত সামাজিক নাটক ‘চরিত্রহীন’।

‘সুস্থ্য সংস্কৃতির চর্চাই হোক দুর্নীতি মুক্ত সমাজ গঠনের হাতিয়ার’ এই প্রতিপাদ্যকে সামনে রেখে গোয়ালন্দ নাট্য ও সাংস্কৃতিক পরিষদ-এর উদ্যোগে প্রতি বছরের ন্যায় এ বছর তিন দিনব্যাপী নাট্য উৎসবে তিনটি সামাজিক নাটক মঞ্চস্থ্য হচ্ছে। এর আগে করোনার কারণে দুই বছর এই নাট্য উৎসব বন্ধ ছিল।

গোয়ালন্দ নাট্য ও সাংস্কৃতিক পরিষদের সভাপতি অধ্যক্ষ আব্দুল কাদের শেখ-এর সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন সাংসদের স্ত্রী রেবেকা সুলতানা, পৌরসভার মেয়র মো. নজরুল ইসলাম মন্ডল, গোয়ালন্দ ঘাট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) স্বপন কুমার মজুমদার, গোয়ালন্দ বাজার ব্যবসায়ী পরিষদের সভাপতি মো. ছিদ্দিক মিয়া, প্রবীণ আওয়ামী লীগ নেতা, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব নির্মল কুমার চক্রবর্তী, উজানচর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান গোলজার হোসেন মৃধা, জেলা পরিষদ সদস্য মো. ইউনুস মোল্লা, নাট্য ও সাংস্কৃতিক পরিষদের সাধারণ সম্পাদক কোমল কুমার সাহা প্রমূখ। অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন অপূর্ব সাহা দ্বিজেন।

উদ্বোধন শেষে কাজী কেরামত আলী অনুষ্ঠানে উপস্থিত দর্শকদের অনুরোধে ‘ময়ুর পঙ্খি রাতেরও নীড়ে, আকাশের তারাতে.. ওই মিছিলে। তুমি.. আমি আর চলো চলে যায় শুধু দুজনে মিলে’ এই গান গেয়ে সবাইকে মুগ্ধ করেন। মধ্যরাত পর্যন্ত চলে অনুষ্ঠান।

অনুষ্ঠানের উদ্বোধক পৌরসভার মেয়র মো. নজরুল ইসলাম বলেন, করোনার কারণে দুই বছর এ ধরনের নাট্য উৎসব বন্ধ ছিল। আগামীতে বড় ধরনের কোনো সমস্যা সৃষ্টি না হলে ধারাবাহিকভাবে এ ধরনের উৎসবের আয়োজন করা হবে। এ জন্য পৌরসভার পক্ষ থেকে সব ধরনের সহযোগিতা করা হবে।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে কাজী কেরামত আলী বলেন, ‘আমরা যেমন নিজের শরীর, মনকে ভালোবাসি, তেমনই এসব ভালো রাখতে হলে নাটক, গানকে ভালোবাসতে হবে। সুস্থ্য ধারার সাংস্কৃতিক চর্চা বেশি করে করতে হবে। সামাজিক নানা অপরাধ থেকে মুক্ত থাকতে হলে সবাইকে এ ধরনের নাট্য ও সাংস্কৃতিক উৎসবে সামিল হতে হবে।’

—-ইউএনবি