August 18, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Wednesday, July 27th, 2022, 9:20 pm

চাঁদপুরের মেঘনায় বালু উত্তোলনে বাধা দেওয়ায় গুলি, আহত ১১

ছবি: সংগৃহীত

জেলা প্রতিনিধি, ব্রাহ্মণবাড়িয়া:

চাঁদপুরের মতলবের উত্তরের মেঘনা নদীতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলনে বাধা দেওয়ায় এলাকাবাসীর ওপর গুলি করার অভিযোগ উঠেছে বালু উত্তোলনকারীদের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় ১১ জন গুলিবিদ্ধ ও কয়েকজন নিখোঁজ রয়েছেন। গত মঙ্গলবার সকালে উপজেলার মোহনপুর ইউনিয়নের মেঘনা নদীর নাছিরাকান্দি মৌজায় এ ঘটনা ঘটে। আহতরা হলেন, মুন্সিগঞ্জের জাহান উদ্দিন (৪২), আমিন উদ্দিন গাজী, শহিদুল হক মোল্লা (৬০), আমিনুল হক (৩৩), রিয়াদ মিয়াজি (১৮), নিরব বেপারি (১৮), মামুন (১৮), রবিন ঢালী (১৮), জাহিদ হোসেন (২১), আবু সাইদ (১৮), মুছা গাজী (২৭)। আহতদের উদ্ধার করে চাঁদপুর সরকারি জেনারেলে হাসপাতালে ও মতলব উত্তর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করেন স্থানীয়রা। জানা যায়, মুন্সিগঞ্জ জেলার চরআব্দুল্লাহপুর স্থানে সরকারীভাবে ইজারাকৃত বালু মহলের নামে চাঁদপুরের মতলবের মেঘনা নদীর তীর ঘেঁষে প্রায়ই অবৈধভাবে বালু উত্তোলনের অভিযোগ উঠছে। এতে নদীর তীরবর্তী গ্রামগুলো বিলিন হওয়ার শঙ্কা রয়েছে। স্থানীয়দের অভিযোগ, ইজারায় উল্লিখিত মুন্সিগঞ্জ জেলার চরআব্দুল্লাহপুর এলাকা থেকে তারা বালু উত্তোলন না করে খরচ কমাতে এবং অতিরিক্ত বালু উত্তোলনে রাতে কিংবা ভোরে নদীর তীরে চলে আসে বলে এলাকাবাসী জানায়। এলাকাবাসী ও পুলিশ জানায়, মতলব উত্তর উপজেলা ও মুন্সিগঞ্জের সদরের মধ্যে দিয়ে বয়ে গেছে মেঘনা নদী। এই নদীর মতলব উত্তর উপজেলার মোহনপুর ইউনিয়নের নাছিরার চর মৌজায় নদী থেকে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করছেন মতলব উত্তরের আওয়ামী লীগ নেতা কাজী মিজান, মুন্সিগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও নারায়ণগঞ্জের সোনারগাঁও এলাকার ইউপি সদস্য নাছির উদ্দীন। গত মঙ্গলবার সকালে তাদের কর্মীরা কয়েকটি ড্রেজার নিয়ে ওই স্থানে বালু উত্তোলন করছিলেন। এ সময় নাছিরারচর এলাকাবাসী তাদের বাধা দেন। একপর্যায়ে এলাকাবাসীকে লক্ষ্য করে গুলি চালালে ১১ জন আহত হন। এ নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে। উত্তর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক স¤্রাট বলেন, গুলিবিদ্ধ হয়ে কিছু লোক চিকিৎসার জন্য হাসপাতালে আসেন। তাদের চিকিৎসা দিয়েছি, কয়েকজন ভর্তি আছেন এবং আর কয়েকজনকে ঢাকায় রেফার করা হয়েছে। গুলিবিদ্ধ জাহান উদ্দিন বলেন, যে স্থানে বালু উত্তোলন করা হচ্ছে তা মতলব উত্তর উপজেলার মোহনপুর ইউনিয়নের নাছিরা কান্দি। আমাদের একটি নৌকা ডুবিয়ে দিয়েছে। এ ঘটনায় আমাদের ২ জন নিখোঁজ রয়েছে। শহিদুল হক মোল্লা বলেন, মতলব উত্তরে বালু কাটার কোন অনুমতি নেই। আমাদের জায়গা রক্ষা করতে গেলে তারা আমাদের টার্গেট করে গুলি করে। অভিযুক্ত ইউপি চেয়ারম্যান আফছার উদ্দিন ভূইয়ার সঙ্গে যোগাযোগ করে হলে তিনি বলেন, আমরা লিজকৃত মুন্সীগঞ্জ এলাকায় সরকারকে রাজস্য দিয়ে বালু কাটছিলাম। তারা ড্রেজারের কাছ থেকে কয়েক বার চাঁদা দাবি করছিল। চাঁদা না দেওয়ায় উভয় পক্ষের সংঘর্ষ হয়েছে। আমার পক্ষের কয়েকজন আহত হয়েছেন এবং ঢাকায় চিকিৎসা নিয়েচ্ছেন। একজন নিখোঁজ রয়েছে। মতলব উত্তর নৌ ফাঁড়ি ইনচার্জ মনিরুজ্জামান বলেন, চাঁদপুর ও মুন্সিগঞ্জ সীমান্ত এলাকায় বালু উত্তোলনকে কেন্দ্র করে দু’পক্ষের মাঝে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় মিন্টু নামের একজন বাল্কহেডের সাথে ধাক্কা লেগে নদীতে পড়ে যায়। পরে তার খোঁজ পাওয়া যায়নি। তার বাড়ি মুন্সিগঞ্জের কালিরচর এলাকায়। তিনি বলেন, এ ঘটনায় এখনও কেউ আমাদের কাছে অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।