October 8, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Saturday, December 4th, 2021, 6:36 pm

টিকেট বিক্রির দিক থেকে সবচেয়ে এগিয়ে ‘মিশন এক্সট্রিম’

নিজস্ব প্রতিবেদক:

ইতিহাস সৃষ্টি করে বাংলাদেশসহ বিশ্বের পাঁচটি দেশে গত শুক্রবার একযোগে একই দিনে মুক্তি পেয়েছে ঢাকাই সিনেমার জনপ্রিয় চিত্রনায়ক আরিফিন শুভ অভিনীত বছরের বহুল আলোচিত সিনেমা ‘মিশন এক্সট্রিম’। মুক্তির প্রথম দিনে দর্শকের মাঝে প্রাণ সঞ্চার করেছে সিনেমাটি। অন্তর্জালে চোখ রাখলে সেই উচ্ছ্বাস দেখা যাচ্ছে। দেশের ৫০ সিনেমা হলে মুক্তি পাওয়া ‘মিশন এক্সট্রিম’ দেশের সবচেয়ে অত্যাধুনিক স্টার সিনেপ্লেক্সের চারটি শাখায় মুক্তি পেয়েছে। সিনেমাটি রাজধানী ঢাকার মানুষ কেমন দেখছে, সেই আভাস শনিবার (৪ ডিসেম্বর) দুপুরে দিয়েছেন স্টার সিনেপ্লেক্সের মিডিয়া ও মার্কেটিং বিভাগের সিনিয়র ম্যানেজার মেসবাহ উদ্দিন আহমেদ। মেসবাহ উদ্দিন আহমেদ বলেন, আমাদের এখানে দুর্দান্তভাবে যাত্রা শুরু করেছে ‘মিশন এক্সট্রিম’। মুক্তির দিনে আমাদের প্রতিটি শাখায় সিনেমাটির প্রায় সব শো হাউসফুল ছিল। দর্শক পুরো সিনেমা দেখছে, প্রশংসা করছে। ধারণা করছি, আস্তে আস্তে দর্শক আরও বাড়বে। কেমন টিকিট বিক্রি হচ্ছে, এমন প্রশ্নে মেসবাহ উদ্দিন আহমেদ জানিয়েছেন, আমাদের এখানে যেসব বাংলা সিনেমা চলে, সেগুলো প্রায় অফ ট্র্যাক সিনেমা। সেই হিসেবে চলতি বছর আমরা যেসব বাংলা সিনেমা চালিয়েছি তাঁর মধ্যে ‘মিশন এক্সট্রিম’ টিকেট বিক্রির দিক থেকে সবচেয়ে এগিয়ে, এটা বলা যায়। এই ধারা অব্যাহত থাকুক আমরা চাই, তাহলে আবারও ইন্ডাস্ট্রি ঘুরে দাঁড়াবে। মুক্তির দিনে ‘মিশন এক্সট্রিম’ টিম ঢাকা শহর ও সাভারের একাধিক সিনেমা হল ঘুরেছে। সেখানে কেমন সাড়া দেখেছেন, এমন প্রশ্নে সিনেমাটির অন্যতম পরিচালক, প্রযোজক ও কাহিনিকার সানী সানোয়ার বলেন, ‘আমরা দুপুর থেকে ঘুরেছি, শুনেছি সকালে দর্শক কম ছিল। তবে আমরা যখন গিয়েছি, প্রায় শো হাউসফুল ছিল। সাভারের সেনা অডিটোরিয়াম ও চন্দ্রিমাতে গিয়েছিলাম, সেখানকার দর্শক ছাত্র ও তরুণ। সেখানে আমি আরও দর্শক আশা করেছিলাম; সে কারণে একটু অখুশি ছিলাম, কিন্তু হলমালিকেরা খুশি। তাঁরা বলেছেন, গেল দুই-তিন বছরে এমন দর্শক হয়নি তাঁদের। আর খুলনা, যশোর, সিলেটসহ অন্য হলমালিকেরা একই চিত্রের কথা জানিয়েছেন আমাদের।’ অন্তর্জালে ‘মিশন এক্সট্রিম’ সিনেমা নিয়ে ভুল তথ্য ছড়ানোর চেষ্টা করা হচ্ছে বলেও জানিয়েছেন সানী সানোয়ার। প্রায় ১৬ আইডি থেকে এই কাজ করা হচ্ছে। তাঁদের পর্যবেক্ষণে রাখা হয়েছে উল্লেখ করে সানী সানোয়ার বলেছেন, কাউকে খুশি করতেই তারা এমন কাজ করছে, ব্যাপারটি বাড়াবাড়ি পর্যায়ে গেলে মিথ্যা তথ্য ছড়ানোর জন্য আইন অনুসারে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। পুলিশ অ্যাকশন থ্রিলার সিনেমাটির কেন্দ্রীয় চরিত্রে অভিনয় করেছেন ‘মাসলম্যান’খ্যাত অভিনেতা আরিফিন শুভ। এ ছাড়া অভিনয় করেছেন তাসকিন রহমান, জান্নাতুল ফেরদৌস ঐশী, সাদিয়া নাবিলা, সুমিত সেনগুপ্ত, রাইসুল ইসলাম আসাদ, ফজলুর রহমান বাবু, শতাব্দী ওয়াদুদ, মাজনুন মিজান, ইরেশ যাকের, মনোজ প্রামাণিক, আরেফ সৈয়দ, সুদীপ বিশ্বাস দীপ, রাশেদ মামুন অপু, এহসানুল রহমান, দীপু ইমামসহ অনেকে। সানী সানোয়ারের সঙ্গে সিনেমাটি যৌথভাবে পরিচালনা করেছেন ফয়সাল আহমেদ। ‘মিশন এক্সট্রিম’ সিনেমাটি পুলিশের কাউন্টার টেরোরিজম ইউনিট তথা ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের ‘সিটিটিসি’র কিছু শ্বাসরুদ্ধকর অভিযান থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে নির্মিত। গল্প ও চিত্রনাট্য লিখেছেন পুলিশ সুপার সানী সানোয়ার নিজেই।