May 28, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Monday, March 21st, 2022, 9:07 pm

ঢাকা মহানগরে নতুন করে বসানো হচ্ছে আরো এক লাখ গ্যাস প্রিপেইড মিটার

ফাইল ছবি

নিজস্ব প্রতিবেদক:

রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠান তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন এ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড (টিজিটিডিসিএল) ঢাকা মহানগরীতে নতুন করে আরো এক লাখ গ্যাস প্রিপেইড মিটার বসানোর উদ্যোগ নিয়েছে। ইতিপূর্বে সংস্থাটি গ্রাহক পর্যায়ে অপচয় রোধ এবং প্রাকৃতিক গ্যাস সংরক্ষণ করে পরিবেশের ওপর ইতিবাচক প্রভাব বাড়াতে ঢাকা মহানগরের আবাসিক খাতে ৩ লাখ ২০ হাজার প্রিপেইড গ্যাস মিটার স্থাপনের প্রকল্প হাতে নিয়েছিল। বিগত ২০১৫ সালে শুরু হওয়া ওই প্রকল্পের কাজ ২০২২ সালের ডিসেম্বরে শেষ হওয়ার কথা থাকলেও ২০২১ সালের ডিসেম্বরেই ওই প্রকল্পের কাজ শেষ হয়েছে। এখন ঢাকা মহানগরে আরও এক লাখ প্রিপেইড গ্যাস মিটার বসানোর লক্ষ্যে কাজ চলছে। তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন এ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড (টিজিটিডিসিএল) সংশ্লিষ্ট সূত্রে এসব তথ্য জানা যায়। সংশ্লিষ্ট সূত্র মতে, জাপান সরকারের ৩৫তম অফিসিয়াল ডেভেলপমেন্ট এ্যাসিস্টেন্স (ওডিএ) ঋণ প্যাকেজভুক্ত ন্যাচারাল গ্যাস এফিসিয়েন্সি প্রজেক্টের অধীনে জাপান আন্তর্জাতিক সহযোগিতা সংস্থা জাইকা তিতাসকে তিন লাখ ২০ হাজার মিটার দেয়। প্রকল্পটি বাস্তবায়নে প্রাক্কলিত ব্যয় ধরা হয় ৭৫৩ দশমিক ৮৪ কোটি টাকা। যা দুই ধাপে তিতাস বাস্তবায়ন করে। ওই প্রকল্পের কাজ শেষ হওয়ার পর আরো এক লাখ প্রিপেইড মিটার স্থাপনে তিতাসকে নির্দেশ দিয়েছে বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটি। ওই সুপারিশ মোতাবেক প্রথম পর্যায়ে ৫০ হাজার মিটার স্থাপনের প্রস্তুতি নিচ্ছে তিতাস। পর্যায়ক্রমে বাকি ৫০ হাজার মিটারও স্থাপিত হবে। সূত্র জানায়, বর্তমানে ঢাকার দুই সিটি কর্পোরেশনে ৩ লাখ ২০ হাজার প্রিপেইড মিটার রয়েছে। আরো এক লাখ প্রিপেইড মিটার তিতাসকে স্থাপনের জন্য সংসদীয় কমিটি নির্দেশ দিয়েছে। জাইকার এক লাখ মিটার দেয়ার কথা রয়েছে। তবে তা প্রক্রিয়াধীন। তার মধ্যে প্রথম পর্যায়ে ৫০ হাজার প্রিপেইড মিটার স্থাপনের প্রস্তুতি নিচ্ছে তিতাস। আর যে ৩ লাখ ২০ হাজার প্রিপেইড মিটার বসানো হয়েছে তার সবই জাপান থেকে এসেছে। ভবিষ্যতে তিতাসের যে মিটার বসানোর পরিকল্পনা রয়েছে তা চূড়ান্ত অনুমোদন হলে দরপত্র আহ্বান করা হবে। জাপান, দক্ষিণ কোরিয়াসহ বেশ কয়েকটি দেশ মিটার রফতানি করে। দরপত্র আহ্বানের পর আমদানিকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর কাছ থেকে মিটার যাচাই-বাছাই করে তারপর যে দেশের মিটার ভালো হবে, সেগুলোই নেয়া হবে। সেক্ষেত্রে যেহেতু জাপান একবার ৩ লাখ ২০ হাজার মিটার দিয়েছে, যদি তাদের মিটার ভালো সার্ভিস দেয় তাহলে তাদের কথা বিবেচনায় রাখা হবে। সূত্র আরো জানায়, রাজধানীতে আবাসিকে গ্যাসের বৈধ সংযোগ রয়েছে ২৮ লাখ ৫৬ হাজার। তার মধ্যে দুই সিটি কর্পোরেশনের গ্যাস সংযোগে প্রিপইড মিটার আছে ৩ লাখ ২০ হাজারটি। মিরপুর, ধানমন্ডি ও গুলশানসহ বিভিন্ন এলাকায় রয়েছে ওসব মিটার। প্রিপেইড মিটারে ব্যবহারের ফলে আগে যেখানে গ্রাহককে প্রায় এক হাজার টাকা বিল দিতে হতো, সেখানে আবাসিক গ্রাহকরা এখন ৫০০ থেকে সর্বোচ্চ ৭০০ টাকা খরচ করলেই সারা মাস গ্যাস ব্যবহার করতে পারছে।