November 27, 2021

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Monday, October 4th, 2021, 7:29 pm

ঢাবির মেডিকেল সেন্টারে করোনার টিকাদান শুরু

সোমবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিচালিত কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনেশন কার্যক্রমে ভ্যাকসিন নিচ্ছেন শিক্ষার্থীরা।

নিজস্ব প্রতিবেদক:

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় (ঢাবি) শহীদ বুদ্ধিজীবী ডা. মোহাম্মদ মোর্তজা মেডিকেল সেন্টারে করোনাভাইরাস প্রতিরোধে টিকাদানের জন্য বিশেষ অস্থায়ী ক্যাম্পের উদ্বোধন করা হয়েছে। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের টিকাদান প্রক্রিয়া সহজ করতে এ অস্থায়ী ক্যাম্প স্থাপন করা হয়। সোমবার (৪ঠা অক্টোবর) সকাল সাড়ে ৯টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান এ টিকাকেন্দ্রের উদ্বোধন করেন।

সোমবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিচালিত কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনেশন কার্যক্রমে ভ্যাকসিন নিচ্ছেন শিক্ষার্থীরা।

এ সময় স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক আবুল বাশার মোহাম্মদ খুরশিদ আলম, বিশ্ববিদ্যালয়ের উপ-উপাচার্য (প্রশাসন) অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ আব্দুস সামাদ, উপ-উপাচার্য (শিক্ষা) অধ্যাপক ড. এ এস এম মাকসুদ কামাল, প্রক্টর অধ্যাপক ড. এ কে এম গোলাম রব্বানী, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মমতাজউদ্দিন ও ঢাকার সিভিল সার্জন ডা. মইনুল আহসান উপস্থিত ছিলেন। জানা যায়, আগামী ১৭ অক্টোবর পর্যন্ত এ ক্যাম্পে টিকাদান কর্মসূচি চলবে। এছাড়া দ্বিতীয় পর্যায়ের (দ্বিতীয় ডোজ) টিকা দেওয়া হবে ১ নভেম্বর থেকে। অস্থায়ী এ ক্যাম্পে শুধু সিনোফার্মের ভেরোসেল টিকা দেওয়া হবে। টিকাদান কর্মসূচির উদ্বোধন শেষে উপাচার্য অধ্যাপক ড. আখতারুজ্জামান বলেন, আমরা সরকারের কাছে দাবি জানিয়ে আসছিলাম যাতে এমন একটা ব্যবস্থা করা হয়। এখন শুধু জাতীয় পরিচয়পত্র দিয়ে এখানে টিকা দেওয়া হচ্ছে।

সোমবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিচালিত কোভিড-১৯ ভ্যাকসিনেশন কার্যক্রমে ভ্যাকসিন গ্রহণ শেষে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করছেন এক শিক্ষার্থী।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ডিজি আমাদের আশ্বস্ত করেছেন, কীভাবে বিষয়গুলো আরও সহজ করা যায় তা উনি দেখবেন। আর যারা এক ডোজ টিকা নিয়েছেন তাদের বিষয়টিও দেখা হবে। ঢাকার সিভিল সার্জন ডা. মইনুল আহসান বলেন, দেশের অধিকাংশ মানুষকে যে টিকা (সিনোফার্ম) দেওয়া হচ্ছে আমরা এখানেও সেটাই দেবো। সিনোফার্ম বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা কর্তৃক সার্টিফায়েড। আশা করি, কোনো সমস্যা হবে না।