October 6, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Wednesday, January 19th, 2022, 7:45 pm

তুষারপাত সাহারা মরুভূমিকে করে তুলেছে অপরূপ

Mandatory Credit: Photo by Geoff Robinson Photography/REX/Shutterstock (9309883g) Snow in the Sahara Desert near the town of Ain Sefra, Algeria Snow in the Sahara Desert - 07 Jan 2018 *Full story: https://www.rexfeatures.com/nanolink/tvw5 As much of the northern hemisphere sees record cold temperatures, the SAHARA Desert has been hit by SNOW for the second time in four decades. Photographers have taken incredible pictures of 40cm deep snow covering the sand in the small Saharan desert town of Ain Sefra after a freak winter storm yesterday (Sun). The town in the world's HOTTEST desert had not seen snow for 37 years when it arrived this time last year and locals were stunned when it began falling on the red sand dunes yesterday morning. Snow started falling in the early hours of Sunday morning and it quickly began settling on the sand. Photographer Karim Bouchetata said: "We were really surprised when we woke up to see snow again. It stayed all day on Sunday and began melting at around 5pm."

অনলাইন ডেস্ক :

সাহারা মরুভূমির কথা শুনলেই প্রথম যেটা মনে হয় তা হলো, প্রচন্ড উত্তাপ আর অনুর্বর উত্তপ্ত বালির বর্জ্য। কিন্তু সেই সাহারায় এখন বালি নেই! তুষারপাতে বালি ঢেকে গেছে। এতে দারুণ এক সৌন্দর্যের সৃষ্টি হয়েছে সাহারায়। সাহারা এলাকায় তুষারপাত সাধারণত খুব একটা দেখা যায় না। বলা যায় খুবই বিরল ঘটনা। কয়েক বছরে একবার ঘটে এমন ঘটনা। খবর ল্যাডবাইবেলের। আলজেরিয়ার আইন সেফরা ‘সাহারার প্রবেশদ্বার’ হিসেবে পরিচিত। আইন সেফরা শহরে এবার খুব ভালোভাবেই শীত শুরু হয়েছে। আর এই শীতে গত ৪২ বছরের মধ্যে পঞ্চবারের মতো শহরটিতে তুষারপাত হয়েছে। রাতারাতি তাপমাত্রা মাইনাস ২ ডিগ্রি সেলসিয়াসে নেমে যায়। এতে শহরটির বাসিন্দারা প্রায় ঠান্ডায় হিম শীতল হয়ে যাওয়ার অবস্থায় পড়ে। শহরটি এটলাস পর্বতমালার মধ্যে অবস্থিত এবং সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে প্রায় তিন হাজার ফুট উপরের অবস্থিত। মরুভূমি সাধারণত শুষ্কই হয় এবং এই জন্যই ওই নামে ডাকা হয়। তবে মরুভূমিতে সব সময় প্রখর উত্তাপ থাকে না। যদিও সাহারা পৃথিবীর একমাত্র মরুভূমি যা তার অতিরিক্ত উত্তাপের জন্য পরিচিত। উত্তর আফ্রিকার বেশিরভাগ অংশ নিয়ে সাহারা মরুভূমির অবস্থান। এই তুষারপাতে মরুভূমিটি আবারও সবুজে ভরে উঠবে এটা আশা করা যায়। তবে তা যেন কিছু সময়ের জন্য না হয়। বিষয়টি এমন যে, পৃথিবীর অন্যান্য জায়গার মতো আদ্রতা এবং তাপমাত্রার ভেতর দিয়ে মুরুভূমিতেও পরিবর্তন হচ্ছে। এর অর্থ হলো পৃথিবীর যে স্থানে একদা প্রাণী এবং উদ্ভিদের অস্তিত্ব ছিলে সেখানটা আবার একদিন সবুজে ভরে উঠবে। প্রাণী আর পোকামাকড়ের প্রাচুর্যতা ফিরবে। তবে সেটা রাতারাতি হয়ে যাবে সেটা ভাববারও কারণ নেই। হয়তো ১৫ হাজার বছর পর আমরা আবার সাহারাকে ফলবান হতে দেখবো।