November 30, 2021

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Monday, September 20th, 2021, 9:02 pm

নারীকে মারধরের ভিডিও ধারণ, সাংবাদিকের ওপর হামলা

রোকনুজ্জামান পারভেজ

জেলা প্রতিনিধি:

শরীয়তপুরে নারীকে মারধরের ভিডিও ধারণ করায় রোকনুজ্জামান পারভেজ (৪১) নামে এক সাংবাদিককে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ উঠেছে। সোমবার (২০ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১টার দিকে দিকে পালং সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পাশে তার ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ঢুকে হামলা চালানো হয়। পরে তাকে উদ্ধার করে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করেন স্থানীয়রা। রোকনুজ্জামান পারভেজ এটিএন বাংলা, এটিএন নিউজ ও বাংলাদেশ প্রতিদিনের শরীয়তপুর প্রতিনিধি হিসেবে কাজ করছেন। এ ছাড়া তিনি শরীয়তপুর ইলেক্ট্রনিক মিডিয়া জার্নালিস্ট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি। আহত সাংবাদিক ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, আজ (সোমবার) দুপুরে নিজ ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে বসেছিলেন পারভেজ। হঠাৎ সেখানে শরীয়তপুর পৌরসভার উত্তর পালং গ্রামের আবুল কাশেম মিয়ার ছেলে নাজমুল মাদবর ও নাঈম মাদবরের নেতৃত্বে ২০-২৫ জন লোক এসে এক নারীকে রড ও লাঠি দিয়ে মারধর করতে থাকে। এ সময় পারভেজের দোকানে ঢুকে পড়েন ওই নারী। হামলাকারীদের দোকান থেকে বের হতে বলেন পারভেজ। কিন্তু তারা বের না হয়ে আবারও ওই নারীকে মারধর করেন। ভিডিও করছিস কেনÑবলে পারভেজকে কিল-ঘুষি মারে এবং রড দিয়ে পিটিয়ে আহত করে তারা। এ ছাড়া পারভেজের দোকানের ক্যাশে রাখা ও সঙ্গে থাকা নগদ টাকা লুট করে নিয়ে যায়। এ বিষয়ে নাজমুল মাদবর ও নাঈম মাদবরের বাবা আবুল কাশেম মিয়া বলেন, ‘আমি এ ব্যাপারে কিছু জানি না। যদি আমার ছেলেরা এই ধরনের ঘটনা ঘটিয়ে থাকে, তাদের বিচার করা হোক।’ সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিক্যাল কর্মকর্তা (আরএমও) ডা. সুমন কুমার পোদ্দার বলেন, পারভেজকে আমার তত্ত্বাবধানে রেখেছি। তার মাথার নিচে ঘাড়ে আঘাত লেগেছে। পালং মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আক্তার হোসেন বলেন, আহত অবস্থায় সাংবাদিক পারভেজকে সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। বিষয়টি গুরুত্ব দিয়ে দেখা হচ্ছে। তদন্ত করে হামলাকারীদের আইনের আওতায় আনা হবে।
শরীয়তপুর প্রেস ক্লাবের সভাপতি অনল কুমার দে বলেন, পারভেজের ওপর হামলার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাই। হামলাকারীদের আইনের আওতায় আনা হোক।