December 9, 2021

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Thursday, August 19th, 2021, 2:28 am

বরিশালে পুলিশের সাথে আওয়ামী লীগের সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ ও আহত ৩৫

ছবি: সংগৃহীত

অনলাইন ডেস্ক :

বরিশাল সদর উপজেলা পরিষদ কম্পাউন্ডে ব্যানার সরানোকে কেন্দ্র করে আনসার সদস্যদের গুলিতে বরিশাল সিটি করপোরেশন (বিসিসি) মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহসহ ৩৫ জন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

এতে স্থানীয় আওয়ামী লীগের বেশ কয়েকজন নেতাকর্মী গুলিবিদ্ধ ও ২ পুলিশ সদস্যসহ কমপক্ষে ৩৫ জন আহত হয়েছেন। আহতদের শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বুধবার (১৮ আগস্ট) রাত ১১টায় নগরীর সিন্ডবি রোডস্থ উপজেলা কার্যলয়ের সামনে ঘটনাটি ঘটেছে।

বরিশাল মহানগরের কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) নুরুল ইসলাম বলেন, তুচ্ছ বিষয় নিয়ে এ ঘটনার সূত্রপাত।

এদিকে গুলিবর্ষণের পর বরিশাল মহানগর আওয়ামী লীগের শীর্ষ নেতারা কয়েকশ কর্মী নিয়ে ইউএনওর বাসভবনের সামনে গিয়ে বিক্ষোভ করছেন।

রাত ১১টার দিকে উপজেলা পরিষদের সামনে জাতীয় শোক দিবসের ব্যানার অপসারণ নিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. মুনিবুর রহমান ও তার নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা আনসার সদস্যদের সাথে বাকবিতণ্ডা হয় আওয়ামী লীগ কর্মীদের।

এ সময় কোন কিছু বুঝে উঠার আগেই উপজেলা নির্বাহী কর্মকতা মো. মুনিবুর রহমান আনসার সদস্যদের গুলি করার নির্দেশ দেন। আনসরারা এলোপাথারী গুলি করলে সিটি করপোরেশনের কর্মীসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা গুলিবিদ্ধ হয়।

পরে বিষয়টির প্রতিবাদ করতে গেলে পুলিশ লাঠিচার্জ করে। এতে আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের ৩০ জন আহত হয়েছে বলে দাবি করেন সিটি করপোরেশনের প্যানেল মেয়র গাজী নঈমুল ইসলাম লিটু।

অপরদিকে উপজেলা পরিষদের সামনের ঢাকা-বরিশাল-পটুয়াখালী মহাসড়কের ওপর ময়লা ও ময়লাবহনকারী গাড়ি দিয়ে রাস্তা আটকে দিয়েছে করপোরেশনের কর্মচারীরা। এতে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ আসে ও অতিরিক্ত ফোর্স মোতায়েন করে। একপর্যায়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বাইরে গেলে, পুলিশ নির্বিচারে সেখানকার আওয়ামী লীগ, ছাত্রলীগ ও যুবলীগের নেতাকর্মীদের ওপর লাঠিচার্জ করে তাদের ছত্রভঙ্গ করে। এতে বেশকয়েকজন নেতাকর্মী আহত হন। ঘটনার পর থেকে পুরো এলাকায় পুলিশ টহল চলছে।