February 5, 2023

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Thursday, December 15th, 2022, 7:48 pm

বিজয় দিবসে দেখা যাবে ‘ওমর ফারুকের মা’

অনলাইন ডেস্ক :

পিরোজপুরের শহীদ মুক্তিযোদ্ধা ওমর ফারুকের মা তার জীবনের শেষ দিন পর্যন্ত বিশ্বাস করতেন তার ছেলে বেঁচে আছে। কোনো একদিন সে ঠিক ফিরে আসবে। মায়ের এ বিশ্বাসের গল্প নিয়ে নির্মাতা এমএ জাহিদুর রহমান নির্মাণ করেছেন মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘ওমর ফারুকের মা’। একুশে পদকপ্রাপ্ত গুণী অভিনেত্রী দিলারা জামান এ সিনেমার নাম ভূমিকায় অভিনয় করেছেন। আর শহীদ ফারুকের ভূমিকায় কাজ করছেন সাঈদ বাবু। ২০১৭-১৮ সালের সরকারি অনুদান ১০ লাখ টাকা পায় এ স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র। এর মূল গল্প ও কাহিনি সংক্ষেপের কাজ করেছেন পরিচালক এমএ জাহিদুর রহমান। চিত্রনাট্য করেছেন মাসুম রেজা। বিজয় দিবসে সারাদেশের জেলা ও উপজেলার প্রেক্ষাগৃহে ওমর ফারুকের মা স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রটির প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছে। এরই সঙ্গে ১৭ ডিসেম্বর বাংলাদেশ টেলিভিশনেও (বিটিভি) হতে যাচ্ছে ওয়ার্ল্ড টিভি প্রিমিয়ার। বিষয়টি নিশ্চিত করে এমএ জাহিদুর রহমান বলেন, ‘বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধের অবিচ্ছিন্ন সত্য একটি ঘটনার ছায়া অবলম্বনে ওমর ফারুকের মা স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্রটি নির্মাণ করেছি। আজ শুক্রবার সারা দেশের জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে প্রেক্ষাগৃহগুলোয় এর প্রদর্শনী হতে যাচ্ছে এবং শনিবার বিকাল ৫টা ২৫ মিনিটে বিটিভি ও বিটিভি ওয়ার্ল্ডে শুভমুক্তি হতে যাচ্ছে। ১৬ ডিসেম্বরে ঢাকাসহ দেশের জেলা ও উপজেলা পর্যায়ে প্রেক্ষাগৃহগুলোয় ও মিলনায়তনে মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক চলচ্চিত্র, মুক্তিযুদ্ধভিত্তিক প্রামাণ্যচিত্র, স্বল্পদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র বিনামূল্যে ছাত্রছাত্রী ও সাধারণ মানুষের মধ্যে সংশ্লিষ্ট জেলা তথ্য অফিসের মাধ্যমে প্রদর্শনীর আয়োজন করা হয়েছে। তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় ওমর ফারুকের মা চলচ্চিত্রটি বিনামূল্যে প্রদর্শনের ব্যবস্থা করা হয়েছে। এর মধ্য দিয়ে দেশের মানুষ মুক্তিযুদ্ধের ভিন্ন একটি চিত্র সম্পর্কে জানতে পারবে। নির্মাতা হিসেবে এটা আমার জন্য আনন্দের।’ বাংলাদেশ ফিল্ম আর্কাইভের প্রজেকশন হলে ওমর ফারুকের মা চলচ্চিত্রটির প্রিমিয়ার অনুষ্ঠিত হয়েছে। এটি উৎসর্গ করা হয়েছে সব শহীদ মুক্তিযোদ্ধা ও ওমর ফারুকের মা”কুলসুম বেগমকে। এর ঘটনাটা পিরোজপুর জেলার আমড়াঝুড়ি কাউখালী উপজেলার আশোয়া আমড়াঝুড়ি নামক স্থানের একজন মুক্তিযোদ্ধা ওমর ফারুক আর তার মায়ের। শহীদ ফারুক ছিলেন পিরোজপুরে মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক ও মুক্তিযোদ্ধা। দেশের স্বাধীনতার জন্য মুক্তিযোদ্ধাদের ঐক্যবদ্ধ করার সময় হানাদার বাহিনীর হাতে তিনি ধরা পড়েন। হানাদাররা তার মাথায় বাংলাদেশের পতাকা লোহার রডে বেঁধে খুঁচিয়ে খুঁচিয়ে তাকে হত্যা করে। কিন্তু তার মা মৃত্যুর আগ পর্যন্ত বিশ্বাস করতেন ছেলে ফিরে আসবে, তাই প্রতি বেলায়ই তিনি ছেলের জন্য রান্না করতেন আর কখনো ঘরের দরজা বন্ধ করতেন না। ছবিটির অন্যান্য চরিত্রে অভিনয় করছেন বন্যা মির্জা, সাহেদ শরীফ খান, খাইরুল আলম সবুজ, নাজনীন হাসান চুমকি, সালমা রহমান, আইনুন পুতুল, রিপন চৌধুরী, কাজী রাজু, সৈয়দ শুভ্র, মুকুল সিরাজ, এবিএম মোতাহারুল ইসলাম, প্রণব ঘোষ, রোশেন শরিফ, তুহিন আহমেদসহ আরো অনেকে।