May 20, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Tuesday, January 18th, 2022, 7:52 pm

বিপিএল মাঠে দর্শক নিয়ে শঙ্কা

নিজস্ব প্রতিবেদক:

আগামী ২১ জানুয়ারি পর্দা উঠবে বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগের অষ্টম আসরের। তবে শুরুর আগেই করোনাভাইরাস হানা দিয়েছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল)। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের মেডিক্যাল বিভাগ থেকে জানানো হয়েছে, সোমবার করা পরীক্ষায় পজিটিভ এসেছেন ৩-৪ জন। তবে তারা সবাই ক্রিকেটার, সাপোর্ট স্টাফ নাকি টিম ম্যানেজমেন্টের সদস্য সেটি জানা যায়নি। বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের মেডিক্যাল বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, এবার টুর্নামেন্টে অংশ নিচ্ছে ৬টি দল। তবে এখন পর্যন্ত দলগুলো বায়োবাবলে প্রবেশ করেনি। মঙ্গলবার থেকে ধাপে ধাপে টিমগুলোর বায়োবাবলে প্রবেশের কথা রয়েছে। মঙ্গলবার (১৮ জানুয়ারী) থেকে আনুষ্ঠানিক পরীক্ষা শুরু হয়েছে। মঙ্গলবার (১৮ জানুয়ারী) খুবই সামান্য কয়েক পরীক্ষা করিয়েছিল। সেখানে ৩-৪ জনের পজিটিভের খবর আসেছে। মঙ্গলবার সকালে প্রায় ৩টি দলের নমুনা পরীক্ষা করার জন্য পাঠানো হয়েছে। আজ বাকিদের পরীক্ষা হবে। মেডিক্যাল বিভাগ থেকে বলা হয়, ‘আমরা ইতোমধ্যে ক্রিকেটারসহ সংশ্লিষ্ট সবার করোনা টেস্ট শুরু করেছি। এখনো পুরোপুরি হয়নি। একটি ফ্র্যাঞ্চাইজির কয়েকজন ছাড়া সবার টেস্ট করা হয়েছে। এর মধ্যে কয়েকজনের পজিটিভ আসে। আমরা এখনো নাম এবং কতজন আক্রান্ত সেটি বলতে পারছি না।’ মেডিক্যাল বিভাগ আরও জানায়, যারা করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হচ্ছেন তাদের হোটেলে ওঠার সুযোগ নেই। আপাতত দলের বাইরে থাকতে হচ্ছে। আক্রান্তদের ক্ষেত্রে টোকিও অলিম্পিকের প্রটোকল ফলো করবে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। কোন উপসর্গ না থাকলে ১০ দিন পর তারা সরাসরি যোগ দিতে পারবেন দলের সঙ্গে। এর মধ্যে তাদের আর কোনো পরীক্ষা হবে না। তবে নিজ উদ্যোগে ফ্রাঞ্চাইজি চাইলে পরীক্ষা করাতে পারবে। এদিকে কভিড-১৯ মহামারীর কারণে বিপিএলের এবারের আসরটিও হবে অনেকটাই জৌলুসহীন; যাতে থাকছে না দর্শক আর ডিসিশন রিভিউ সিস্টেম (ডিআরএস)। মূলত দেশে-বিদেশে কভিডের সংক্রমণ নতুন করে বেড়ে যাওয়ায় জনসমাগম না করার ব্যাপারে সরকারি বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। সে কারণেই এবারের আসরে কোনো দর্শক মাঠে প্রবেশের অনুমতি পাচ্ছেন না। আর জৈব সুরক্ষা বলয়ে রাখা হবে গোটা স্টেডিয়ামকে। অন্যদিকে বিপিএলে ডিআরএস সরবরাহ করার কথা ছিল ভারতের প্রতিষ্ঠান হক-আইর। করোনার কারণে ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হচ্ছে। যে কারণে বাংলাদেশে ডিআরএস অপারেটর নিয়োগ দিতে পারছে না প্রতিষ্ঠানটি। এ ছাড়া বিভিন্ন দেশের আন্তর্জাতিক খেলা থাকায় অপারেটরদের বড় অংশ ব্যস্ত সেগুলো নিয়ে। এর পরও বিসিবি থেকে চেষ্টা করা হচ্ছে, সেটাতেও খুব একটা আশাব্যঞ্জক সাড়া পাওয়া যাচ্ছে না। এবারের বিপিএলে অংশ নিচ্ছে ছয়টি দল: মিনিস্টার গ্রুপ ঢাকা, চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স, ফরচুন বরিশাল, খুলনা টাইগার্স, কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স ও সিলেট সানরাইজার্স। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ফ্র্যাঞ্চাইজি ফি ১ কোটি টাকা ও প্লেয়ার্স পেমেন্টের ৪ কোটি টাকা দিতে ব্যর্থ হওয়ায় শেষ মুহূর্তে মালিকানা বাতিল হয় রূপা অ্যান্ড মার্ন গ্রুপ কনসোর্টিয়ামের। ড্রাফটে ঢাকার হয়ে দল গোছায় বিসিবি। অবশেষে এই দলটির মালিকানা পেয়েছে মিনিস্টার গ্রুপ। এই দলটিতে রয়েছেন তামিম ইকবাল, মাহমুদউল্লাহ, মাশরাফি বিন মর্তুজা ও আন্দ্রে রাসেলের মতো তারকা। বিপিএলের উদ্বোধনী ম্যাচে মুখোমুখি হবে চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্স ও ফরচুন বরিশাল। মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে বেলা দেড়টায় উদ্বোধনী ম্যাচ মাঠে গড়াবে। ওই দিন সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় একই মাঠে খেলবে খুলনা টাইগার্স ও মিনিস্টার গ্রুপ ঢাকা।