June 15, 2024

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Friday, October 20th, 2023, 6:39 pm

বোমা-হত্যার হুমকিতে ভার্জিনিয়ার ভোজসভা বাতিল করল মার্কিন মুসলিম নাগরিক অধিকার গোষ্ঠী

এপি, ভার্জিনিয়া :

বোমা ও প্রাণনাশের হুমকি পাওয়ায় ভার্জিনিয়ার একটি হোটেল থেকে জাতীয় মুসলিম নাগরিক অধিকার গোষ্ঠী বার্ষিক ভোজসভা সরিয়ে নিয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে ইসরায়েল-হামাস যুদ্ধে আটকা পড়া ফিলিস্তিনিদের জন্য মুসলিম এই গোষ্ঠীটির উদ্বেগ রয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২০ অক্টোবর) এই তথ্য জানিয়েছে মুসলিমদের নাগরিক অধিকার সংস্থাটি।

কাউন্সিল অন আমেরিকান-ইসলামিক রিলেশনস (সিএআইআর) ওয়াশিংটন ডিসি থেকে পোটোম্যাক নদীর ঠিক ওপারে আর্লিংটনের ম্যারিয়ট ক্রিস্টাল গেটওয়েতে শনিবার তাদের ২৯তম বার্ষিক ভোজসভার পরিকল্পনা বাতিল করেছে।

এক দশক ধরে হোটেলটি ব্যবহার করে আসা এই গোষ্ঠীটি কঠোর নিরাপত্তাসহ একটি অজ্ঞাত স্থানে ভোজসভা সরিয়ে নেবে বলে গ্রুপের বিবৃতিতে বলা হয়েছে।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়, ‘ম্যারিয়টের মতে, সাম্প্রতিক সময়ে অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তিরা হোটেলের পার্কিং গ্যারেজে বোমা স্থাপন, হোটেলের নির্দিষ্ট কর্মীদের তাদের বাড়িতে হত্যা এবং ৬ জানুয়ারি যুক্তরাষ্ট্রের ক্যাপিটল ভবনে হামলার পুনরাবৃত্তি ঘটানোর হুমকি দিয়েছে।’

আর্লিংটন পুলিশ এক ই-মেইলে জানিয়েছে, বৃহস্পতিবার সকালে হোটেল থেকে সিএআইআর ইভেন্টে ‘কিছু বোমা হামলার হুমকির’ বিষয়ে বেনামী ফোন কল পাওয়ার বিষয়টি তদন্ত করে দেখছে পুলিশ।

এফবিআইয়ের কাছ থেকে মন্তব্য চেয়ে ইমেলগুলো সিএআইআরও তদন্ত করছে বলে জানিয়েছে, এবং ম্যারিয়ট হোটেল চেইনকে বৃহস্পতিবার গভীর রাতে তাৎক্ষণিকভাবে উত্তর দেওয়া হয়নি।

আগামী ২৮ অক্টোবর মেরিল্যান্ডে অনুষ্ঠেয় একটি পৃথক ভোজসভাও বাতিল করা হয়েছে এবং শনিবারের অনুষ্ঠানের সঙ্গে একীভূত করা হবে বলে জানিয়েছে সিএআইআর।

ফিলিস্তিনিদের মানবাধিকার ইস্যুতে ফোকাস করার জন্য সিএআইআর ভোজের প্রোগ্রামিং আপডেট করার পরে এই হুমকি এসেছে। গ্রুপটি গাজায় যুদ্ধবিরতি প্রচারের জন্য কংগ্রেসের সদস্যদের প্রতি আহ্বান জানিয়ে একটি অনলাইন প্রচারণা শুরু করেছে।

এক বিবৃতিতে সিএআইআর-এর ন্যাশনাল এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর ফিলিস্তিনি আমেরিকান নিহাদ আওয়াদ বলেন, ‘আমরা আমাদের সংস্থা, ম্যারিয়ট হোটেল এবং এর কর্মীদের বিরুদ্ধে চরম ও ঘৃণ্য হুমকির তীব্র নিন্দা জানাই। আমরা ফিলিস্তিন বিরোধী বর্ণবাদী ও মুসলিম বিদ্বেষীদের হুমকি মেনে নেব না, যারা ফিলিস্তিনি জনগণকে অমানবিক করতে চায় এবং সবার জন্য ন্যায়বিচার পেতে বাধা দিতে আমেরিকান মুসলমানদের চুপ করিয়ে দিতে চায়।’

অবরুদ্ধ গাজা উপত্যকা থেকে হামাস গত ৭ অক্টোবর নিকটবর্তী ইসরায়েলি শহরগুলোতে অভিযান চালায়। এতে শত শত সামরিক-বেসামরিক লোক নিহত হয়। এরপর থেকে ইসরায়েল গাজায় বিমান হামলা চালিয়ে পুরো এলাকা ধ্বংস করে দিয়েছে এবং শত শত ফিলিস্তিনি বেসামরিক নাগরিককে হত্যা করেছে।

এই যুদ্ধ যুক্তরাষ্ট্রে সহিংসতাকে অনুপ্রাণিত করবে বলে উদ্বেগ রয়েছে। গত সপ্তাহে বড় বড় শহরগুলোতে পুলিশ টহল বৃদ্ধি করেছে। কর্তৃপক্ষ যুক্তরাষ্ট্রের ক্যাপিটলের চারপাশে বেড়া স্থাপন করে এবং কিছু স্কুল বন্ধ করে দিয়েছে। তবে আইন প্রয়োগকারী কর্মকর্তারা জোর দিয়ে বলেছেন, মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে কোনও বিশ্বাসযোগ্য হুমকি নেই।