July 16, 2024

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Sunday, April 2nd, 2023, 4:28 pm

ভারতের পেট্রাপোলে কাজ বন্ধ থাকায় বেনাপোলে দ্বিতীয় দিনের মতো স্থবির আমদানি-রপ্তানি

ফাইল ছবি

বাংলাদেশি রপ্তানি পণ্যবাহী মাছের ট্রাকে স্বর্ণ পাচারের ঘটনায় ভারতীয় ক্লিয়ারিং অ্যান্ড ফরোয়ার্ডিং (সিঅ্যান্ডএফ) স্টাফ সদস্যের বিরুদ্ধে মামলার প্রতিবাদে বেনাপোল-পেট্রাপোল বন্দরে বন্ধ রয়েছে রপ্তানি বাণিজ্য।

শনিবার (১ এপ্রিল) সিঅ্যান্ডএফ স্টাফ সদস্যের বিরুদ্ধে মামলা প্রত্যাহারের দাবিতে সকাল থেকে ভারতের পেট্রাপোল বন্দর ব্যবহারকারী সংগঠনগুলো কর্মবিরতির ডাক দিলে বন্ধ হয় রপ্তানি বাণিজ্য।

বেনাপোল সিঅ্যান্ডএফ স্টাফ অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক সাজেদুর রহমান জানান, গত ১৮ মার্চ সাতক্ষীরার মোস্তফা অরগানিক নামক একটি রপ্তানিকারক প্রতিষ্ঠান তিন টন তেলাপিয়া মাছ ট্রাকের মাধ্যমে ভারতে রপ্তানি করে। পণ্য চালানটি রপ্তানির জন্য ‘ব্রাদার্স সেন্ডিগেট’ নামক সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট বেনাপোল কাস্টমসে ডকুমেন্টস দাখিল করে। মাছ আমদানি করে ভারতের উত্তর ২৪ পরগনার ‘বাবা ইন্টারন্যাশনাল’। ওই দিন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বিএসএফ ট্রাক তল্লাশি করে মাছের কার্টুনের মধ্য থেকে চার কেজি ৬৬৬ গ্রাম ওজনের ৪০টি স্বর্ণের বার উদ্ধার করে।

তিনি আরও বলেন যে এ ঘটনায় বাংলাদেশি ট্রাক চালক সু শঙ্কর দাস ও ভারতীয় সিঅ্যান্ডএফ স্টাফ লালটুর বিরুদ্ধে মামলা দেয় বিএসএফ। ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে এই মামলা তুলে নেওয়ার দাবিতে ব্যবসায়ীরা শনিবার কর্মবিরতি ডাক দেয়। এতে বন্ধ হয় দুই দেশের মধ্যে রপ্তানি বাণিজ্য।

বেনাপোল আমদানি-রপ্তানি সমিতির সহ-সভাপতি আমিনুল হক জানান, রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ থাকায় বেনাপোল বন্দরে ভারতে প্রবেশের অপেক্ষায় আটকা পড়েছে প্রায় তিন শতাধিক পণ্যবাহী ট্রাক। এসব পণ্যের মধ্যে পাট ও পাটজাত দ্রব্য, কেমিকেল গার্মেন্টস, মাছসহ জরুরি মালামাল রয়েছে।

দ্রুত সমাধানের মাধ্যমে বাণিজ্য সচলের আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

সাধারণ ব্যবসায়ীরা জানান, আগে সীমান্ত পথে পাচার কার্যক্রম হলে এখন বৈধ পথে স্বর্ণ, মাদক পাচার বেড়েছে। এতে বাণিজ্য বিঘ্ন ও সাধারণ ব্যবসায়ী ও ট্রাক চালকেরা হয়রানির শিকার হচ্ছে। এর সঙ্গে জড়িত প্রকৃত অপরাধীদের শনাক্ত করে আইনের আওতায় আনা গেলে পাচার কার্যক্রম বন্ধ হবে।

বেনাপোল বন্দরের উপপরিচালক আব্দুল জলিল জানান, স্বর্ণ পাচার মামলা নিয়ে সীমান্তরক্ষী বিএসএফ ও ভারতীয় ব্যবসায়ীদের দ্বন্দ্বের জেরে ব্যবসায়ীদের ডাকা কর্মবিরতিতে শনিবার দিনভর রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ ছিল এবং আজও বন্ধ আছে।

—-ইউএনবি