June 28, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Thursday, April 28th, 2022, 7:52 pm

মানে ‘ওয়ার্ল্ড ক্লাস’: ক্লপ

অনলাইন ডেস্ক :

আক্রমণে যে কোনো পজিশনে সমান পারদর্শী তিনি। দুর্দান্ত গতি, স্কিল দিয়ে মুহূর্তেই গুঁড়িয়ে দিতে পারেন প্রতিপক্ষের রক্ষণ। সব দিক বিচারে দারুণ প্যাকেজ সাদিও মানেকে নিয়ে মুগ্ধতার শেষ নেই লিভারপুল কোচ ইয়ুর্গেন ক্লপের। তার মতে, বিশ্বমানের এই ফরোয়ার্ড ভালোভাবেই থাকবেন ব্যালন ডি’অরের বিবেচনায়। সাম্প্রতিক সময়ে নিয়মিতভাবে মানেকে আক্রমণের মূল ভূমিকায় খেলাচ্ছেন ক্লপ, যেমনটা খেলেছিলেন ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ও এভারটনের বিপক্ষে। একইভাবে বুধবার চ্যাম্পিয়ন্স লিগে ভিয়ারিয়ালের বিপক্ষে সেমি-ফাইনালের প্রথম লেগেও একই পজিশনে খেলেন সেনেগাল তারকা। প্রথমার্ধে স্প্যানিশ দলটির রক্ষণ দুর্গ ভাঙতে ব্যর্থ লিভারপুল বিরতির পর দুই মিনিটে দুই গোল দিয়ে ম্যাচটি জিতেছে। প্রতিপক্ষের আত্মঘাতী গোলে এগিয়ে যাওয়ার পর ৫৫তম মিনিটে ব্যবধান বাড়ান মানে। ডি-বক্সের মুখ থেকে ডিফেন্ডার পাও তরেসেরে পায়ের ফাঁক দিয়ে থ্রু পাস বাড়ান মোহামেদ সালাহ। দারুণ এক টোকায় গোলরক্ষককে পরাস্ত করেন মানে। চলতি মৌসুমে সব প্রতিযোগিতা মিলিয়ে ৪৪ ম্যাচে ২০ গোল করেছেন মানে। এর মধ্যে সবশেষ সাত ম্যাচে ছয় বার জালের দেখা পেয়েছেন ৩০ বছর বয়সী এই ফুটবলার। ভিয়ারিয়াল ম্যাচের পর দলের প্রয়োজন অনুযায়ী ভিন্ন ভিন্ন পজিশনে দারুণ খেলা মানেকে প্রশংসায় ভাসান ক্লপ। পরিস্থিতির সঙ্গে তার মানিয়ে নেওয়ার দারুণ দক্ষতা রয়েছে বলে মনে করেন জার্মান কোচ। “সে লেফট উইঙ্গার হিসেবে খেলতে পারে, সে সেন্ট্রালেও খেলতে পারে, উভয় পজিশনেই সে বিশ্বমানের। লিভারপুলে সে রাইট উইঙ্গার হিসেবে শুরু করেছিল। এখন এই রুমে থাকা অনেকেরই মনে আছে (লিভারপুলের হয়ে) তার প্রথম গোলটি, যেটা ছিল আর্সেনালের বিপক্ষে। সে কাট করে ডি-বক্সে ঢুকে বাঁ পায়ের কোনাকুনি শটে বল জালে জড়িয়েছিল। দারুণ একটি গোল ছিল, আমার খুব পছন্দের।” “সাদিওর খেলার বিভিন্ন ধরণ আছে এবং মাঝে মাঝে আমরা তাকে একটু নিচে নেমে খেলাতে চাই। কিন্তু আজকে আমরা চেয়েছিলাম সে যেন প্রতিপক্ষের সেন্টার-ব্যাকদের আরও মাঝামাঝি থাকে, তার সে দক্ষতা রয়েছে।” চ্যাম্পিয়ন্স লিগের নকআউট পর্বে এখন পর্যন্ত ১৪ গোল করেছেন মানে, আফ্রিকান খেলোয়াড়দের মধ্যে সাবেক চেলসি তারকা দিদিয়ের দ্রগবার সঙ্গে যৌথভাবে যা সর্বোচ্চ। ক্লাব ও জাতীয় দলের হয়ে গত কয়েক মাস ধরে দারুণ সময় কাটাচ্ছেন মানে। গত ফেব্রুয়ারিতে সেনেগালের হয়ে জেতেন আফ্রিকান নেশন্স কাপের শিরোপা। এরপর কাতার বিশ্বকাপে দেশকে তুলতেও রাখেন গুরুত্বপূর্ণ অবদান। ক্লপ মনে করেন, লিভারপুল চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিতলে মানের ব্যালন ডি’অর জেতার সম্ভাবনা অনেকটাই বেড়ে যাবে। “(লিওনেল) মেসি বা (ক্রিস্তিয়ানো) রোনালদো ছাড়া অন্যান্যের ব্যালন ডি’অর জেতার জন্য সম্ভবত চ্যাম্পিয়ন্স লিগ জিততে হবে, যা আমরা এখনও জিতিনি। আমাদের আরও কয়েক সপ্তাহ সময় দিতে হবে। তারপরে দেখা যাক কী হয়।”