September 27, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Thursday, December 2nd, 2021, 8:01 pm

ম্যাচ জমিয়েও জয় পেল না মুক্তিযোদ্ধা সংসদ

নিজস্ব প্রতিবেদক:

আর্জেন্টাইন কোচের হাত ধরে প্রথম ম্যাচে কষ্টের জয় পাওয়া সাইফ স্পোর্টিং এবার মেলে ধরল পাসিং ফুটবলের পসরা। বলের নিয়ন্ত্রণ, আক্রমণে করল আধিপত্য। সহজ জয়ের পথে থাকা সাইফ স্পোর্টিংকে শেষ দিকে চেপে ধরলেও আটকাতে পারেনি মুক্তিযোদ্ধা সংসদ। শঙ্কার মেঘ সরিয়ে স্বাধীনতা কাপের কোয়ার্টার-ফাইনালের পথে অনেকটা এগিয়ে গেল দিয়েগো আন্দ্রেস ক্রুসিয়ানির দল। কমলাপুরের বীরশ্রেষ্ঠ শহীদ সিপাহী মোস্তফা কামাল স্টেডিয়ামে বৃহস্পতিবার ‘সি’ গ্রুপের ম্যাচে মুক্তিযোদ্ধা সংসদ ক্রীড়া চক্রকে ৩-২ গোলে হারিয়েছে সাইফ স্পোর্টিং। বাংলাদেশ সেনাবাহিনীকে ২-১ গোলে হারিয়ে প্রতিযোগিতায় যাত্রা শুরু করেছিল তারা। টানা দুই জয়ে ৬ পয়েন্ট নিয়ে গ্রুপে শীর্ষে রয়েছে সাইফ স্পোর্টিং। দিনের অন্য ম্যাচে বাংলাদেশ সেনাবাহিনী ও মোহামেডান স্পোর্টিং ড্র করলে কোয়ার্টার-ফাইনালে উঠে যাবে ক্রুসিয়ানির দল। ষোড়শ মিনিটে মোহাম্মদ রাজীবের দৃঢ়তায় এগিয়ে যেতে পারেনি সাইফ স্পোর্টিং। এমফন সানডের পাস ধরে এমেকা ওগবাহর জোরালো শট প্রথমবার আটকানোর পর নাইজেরিয়ার এই ফরোয়ার্ডের ফিরতি শটও ঝাঁপিয়ে পড়ে আটকান গোলরক্ষক। দুই মিনিট পরই এমফনের থ্রু পাস ধরে ফয়সাল আহমেদ ফাহিমের নিখুঁত প্লেসিং শটে এগিয়ে যায় সাইফ স্পোর্টিং। ৩২তম মিনিটে ওগবাহর দূরপাল্লার কোনাকুনি শট আটকান রাজীব। পাঁচ মিনিট পর বক্সের বাইরে থেকে ফাহিমের শট যায় পোস্ট ঘেঁষে। ৪১তম মিনিটে ওগবাহর সাথে বল দেওয়া নেওয়া করে কোনাকুনি শটে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন ডিফেন্ডার নাসিরুল ইসলাম। প্রথমার্ধের শেষ দিকে জামাল ভূইয়ার ব্যাকপাস গোলরক্ষক হাত দিয়ে ধরায় ইনডিরেক্ট ফ্রি কিক পায় মুক্তিযোদ্ধা সংসদ। ছোট ডি-বক্সের সামনে থেকে মিশরের ফরোয়ার্ড আইমেদ আইমানের শট আটকে দেয় সাইফ স্পোর্টিংয়ের রক্ষণভাগ। দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতে কর্নারের পর ডি-বক্সের একটু উপরে বল পেয়ে যান এমফন। সাইফ স্পোর্টিংয়ের এই নাইজেরিয়ান ফরোয়ার্ডের বুলেট গতির শট ক্রসবার কাঁপিয়ে ফিরে আসে। ৬৬তম মিনিটে সতীর্থের থ্রু বলের পেছনে ছুটছিলেন ওগবাহ, মুক্তিযোদ্ধা সংসদের ইউনুসা কামারার ছুটছিলেন ক্লিয়ার করতে। রাজীব পোস্ট ছেড়ে বের হয়ে এলেও বল ধরতে পারেনি, আচমকা কামারার পায়ে লেগে বল যাচ্ছিল পোস্টের দিকে, শেষ পর্যন্ত গোল লাইনের একটু উপর থেকে ফেরাতে সক্ষম হন গিনির এই ডিফেন্ডার। ৭৬তম মিনিটে ফাহিমকে ফাউল করে দ্বিতীয় হলুদ কার্ড দেখেন সাজন মিয়া। পাঁচ মিনিট পর আসরোর গফুরভের কাট ব্যাকে সাজ্জাদ হোসেনের প্লেসিং শটে ব্যবধান আরও বাড়িয়ে নেয় সাইফ স্পোর্টিং। নির্ধারিত সময়ের চার মিনিট আগে দিদারুল আলমের ফ্রি কিকের পর বক্সের ভেতরের জটলা থেকে জাপানি মিডফিল্ডার তেতসুয়াকি মিসুয়া লক্ষ্যভেদ করেন। দ্বিতীয়ার্ধের যোগ করা সময়ে মিসুয়ার সফল স্পট জমে ওঠে ম্যাচ, শেষ পর্যন্ত অবশ্য হার এড়াতে পারেনি তারা। মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাবের কাছে ২-১ গোলে হেরে স্বাধীনতা কাপ শুরু করেছিল মুক্তিযোদ্ধা সংসদ। তাদের গ্রুপ পর্ব পেরুনোর আশা টিকে আছে ¯্রফে কাগজে-কলমে।