June 12, 2024

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Thursday, May 16th, 2024, 7:14 pm

যশোরে নির্বাচনী অফিসকে কেন্দ্র করে হামলায় আহত ৬

যশোরের শার্শায় নির্বাচনকে সামনে রেখে নির্বাচনী অফিসকে কেন্দ্র করে বর্তমান চেয়ারম্যানের সমর্থকদের হামলায় সাবেক চেয়ারম্যানসহ অন্তত ৬ জন আহত হয়েছেন।

বুধবার (১৫ মে) রাত ৯টার দিকে উপজেলার গোগা ইউনিয়নের গোগা বাজারে এ হামলার ঘটনা ঘটেছে।

আহতদের মধ্যে রয়েছে- সাবেক ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) চেয়ারম্যান আব্দুর রশিদ (৬০), ইউনিয়ন যুব লীগের সাধারণ সম্পাদক জসিম উদ্দীন (৪৪), গোগা এলাকার জয়নালের ছেলে জুলফিকার আলী ভুট্রো (৪০), একই এলাকার নুর ইসলামের ছেলে আব্দুল ওহাব (৪৫) ও ইদ্রিস (৪৫) ।

তাদেরকে উদ্ধার করে শার্শা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। উল্লেখ্য, আগামী ২১ মে যশোরের শার্শা উপজেলায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে।

স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, প্রায় ৩/৪ মাস আগে গোগা ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান তবিবর রহমানসহ তার লোকজন সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুর রশিদের গোগা বাজারে অবস্থিত একটি ভাড়াটিয়া মুদি দোকান জোরপূর্বক দখল করে নেয় এবং দোকানে তালা দিয়ে দোকানের চাবি বাজার কমিটির সেক্রেটারি ইউনিয়ন যুব লীগের সভাপতি মোহাম্মদ আলীর কাছে রাখা হয়।

বুধবার (১৫ মে) ঘটনার সময়ে রশিদ চেয়ারম্যান উক্ত দোকান ঘরটি উপজেলা চেয়ারম্যান পদ প্রার্থী সোহারাব হোসেনের পক্ষে নির্বাচনী অফিস করার লক্ষ্যে মোহাম্মদ আলীর কাছ থেকে দোকানের চাবি চাইলে দেবেন না বলে জানিয়ে দেন।

এ সময় তিনি উক্ত দোকানের তালা ভেঙে দোকানে প্রবেশ করে এবং চেয়ারম্যান পদ প্রার্থী সোহরাব হোসেনের নির্বাচনী অফিস হিসেবে ঘোষণা করেন। তখন বর্তমান চেয়ারম্যান তবিবরকে দোকানের তালা ভাঙার বিষয়টি জানিয়ে তরিকুল মেম্বার, বাবুল, শাহ আলম মেম্বার, সাহেব আলীসহ আরও ১০/১২ জনের একটি বাহিনী লাঠি ও দেশীয় অস্ত্র নিয়ে তাদের উপর আতর্কিত হামলা চালায়।

সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুর রশিদ বলেন, ‘আমরা উপজেলা নির্বাচনে দোয়াত-কলম মার্কার প্রার্থী সোহারাব হোসেনের জন্য ইউনিয়নের বিভিন্ন গ্রামে ভোট প্রার্থনা করে গোগা বাজারে এসে জসিমের দোকানে বসে ছিলাম। আমাদের পক্ষে দিন দিন জনসমর্থন বেশি দেখে তবি ও তার সন্ত্রাসী বাহিনী সহ্য করতে না পেরে তারা আমাদের উপর অতর্কিত হামলা চলিয়ে আমিসহ আমার ৫/৬ জন নেতা-কর্মীকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে।’

নাভারন সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার নিশাত আল নাহিয়ান জানান, এ ঘটনায় রাতে থানায় একটি মামলা হয়েছে এবং ঘটনার সঙ্গে জড়িত একজনকে আটক করা হয়েছে।

কোনো ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা যেন না ঘটে সেজন্য গোগা ও ভুলোট এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

——ইউএনবি