August 13, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Thursday, July 14th, 2022, 7:53 pm

রোনালদিনিয়ো, নেইমারদের মতো সাফল্য চান রাফিনিয়া

অনলাইন ডেস্ক :

স্প্যানিশ ক্লাব বার্সেলোনার জার্সিতে আলো ছড়াতে দেখেছেন রোনালদিনিয়ো, নেইমারকে। তাদের মুঠোভরে পেতেও দেখেছেন। কাতালান দলটির হয়ে পূর্বসূরিদের মতো সাফল্য পাওয়ার আকাক্সক্ষা আগেভাগে জানিয়ে রাখলেন রাফিনিয়া। ব্রাজিলের এই উইঙ্গারকে দলে টানতে লিডস ইউনাইটেডের সঙ্গে গত বুধবার সমঝোতায় পৌঁছেছে বার্সেলোনা। মেডিকেলের পর সারা হবে চুক্তির বাকি আনুষ্ঠানিকতা। চুক্তির আর্থিক অঙ্ক অবশ্য প্রকাশ করেনি কোনো পক্ষই। তবে স্পেনের গণমাধ্যমে আসা প্রতিবেদন অনুযায়ী ফি বাবদ আপাতত খরচ হবে ৫ কোটি ৮০ লাখ ইউরো। চুক্তি অনুযায়ী আরও কিছু যোগ হলে বার্সেলোনার খরচের অঙ্ক ছুঁতে পারে ৬ কোটি ৮০ লাখ ইউরো। শেষ দিকে দুই ইংলিশ ক্লাব চেলসি ও আর্সেনাল রাফিনিয়াকে দলে টানতে চেয়েছিল। কিন্তু ব্রাজিলিয়ান এই উইঙ্গার লুফে নেন বার্সেলোনার প্রস্তাব। কাতালুনিয়ার দলটিকে বেছে নেওয়ার কারণও জানাতে বলেছেন স্বপ্ন পূরণের আনন্দ অনুভব করার কথা। “এটা আমার কাছে একটা স্বপ্ন পূরণ। কেবল আমার জন্য নয়, আমার পরিবার এবং বন্ধুদের জন্যও। যারা আমাকে খেলতে দেখে, তারা জানে, এখানে আসা একটা স্বপ্ন পূরণ, যে স্বপ্নটা আমি ছোটবেলা থেকে দেখেছি।” “এখন আমাকে যেটা করতে হবে, তা হচ্ছে নিজের সেরাটা দেওয়া এবং বার্সা সবসময় যেমন ছিল, এই বার্সাকে সেখানে ফিরতে সাহায্য করা।” এ বছরের কাতার বিশ্বকাপে ব্রাজিল দলে রাইট উইঙ্গার হিসেবে খেলার দৌড়ে রাফিনিয়া এগিয়ে আছেন সবচেয়ে বেশি। জাতীয় দলের সবশেষ নয় ম্যাচের সাতটিতেই তিনি খেলেন শুরুর একাদশে। ২০২১ সালের অক্টোবরে ব্রাজিল কোচ তিতে প্রথম তার দলে ডাকেন রাফিনিয়াকে। এরপর তিনটি গোল করে ও দুটি করিয়ে কোচের আস্থা অর্জন করেন তিনি। কিন্তু ক্লাব পর্যায়ে এখনও নিজেকে ঠিক সেভাবে মেলে ধরতে পারেননি রাফিনিয়া। ২৫ বছর বয়সী এই উইঙ্গারের সামনে এবার নতুন চ্যালেঞ্জ। বার্সেলোনার জার্সিতে ক্লাব ফুটবলের আঙিনা মাতিয়েছেন তার স্বদেশি রিভালদো, রোনালদিনিয়ো ও নেইমার। এ কারণে রাফিনিয়ার চ্যালেঞ্জটা আরও বেশি। তবে প্রত্যয়ী কণ্ঠে বার্সেলোনা সমর্থকদের আশার কথাই শোনালেন তিনি। “আমি সবসময় জয়ের জন্য লড়াই করি, অনুশীলন করি এবং প্রতিদিন সেরা হওয়ার চেষ্টা করি।” “এখানে রোনালদিনিয়ো ও নেইমারের খেলা আমি দেখেছি। বার্সাতে আসা আরও একজন ব্রাজিলিয়ান আমি এবং আশা করি, তারা যেটা অর্জন করেছে বার্সার হয়ে, আমিও সেটা অর্জন করতে পারব।”