December 8, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Tuesday, November 15th, 2022, 7:27 pm

‘লাল শাড়ি’তে নতুন জুটির কেমেস্ট্রি দেখবেন দর্শক

অনলাইন ডেস্ক :

মানিকগঞ্জের পদ্মা নদীর তীরবর্তী এলাকায় শুটিং হচ্ছে ‘লাল শাড়ি’ সিনেমার। এই সিনেমায় সায়মন সাদিক অপু বিশ্বাসের সঙ্গে প্রথমবারের মতো জুটি বেঁধে অভিনয় করছেন। সরকারি অনুদানপ্রাপ্ত এই সিনেমা নির্মাণ করছেন বন্ধন বিশ্বাস। গত ২ নভেম্বর থেকে শুরু হয়েছে সিনেমাটির শুটিং। সিনেমাটি প্রসঙ্গে পরিচালক বন্ধন বিশ্বাস বলেন, আমি অনেকদিন ধরে চিন্তা করছিলাম। এই জুটিকে নিয়ে সিনেমা করব। তবে এত তাড়াতাড়ি করতে পারব, সেটি ভাবতে পারিনি। আশা করছি ‘লাল শাড়ি’র মাধ্যমে দর্শক প্রেক্ষাগৃহে নতুন জুটির কেমেস্ট্রি দেখবেন। এখনই ছবিটি সম্পর্কে বিস্তারিত বলতে চাচ্ছি না। এটি সিনেমা হলে গিয়ে দেখলেই বুঝতে পারবেন দর্শকরা। সত্যিকারার্থেই সিনেমাটিতে দর্শকদের জন্য চমক রয়েছে। সাইমন বলেন, এটি ছাড়াও আমি এখন বেশ কয়েকটি সিনেমার কাজ নিয়ে তুমুল ব্যস্ত রয়েছি। সিডিউল ঠিক করে প্রতিটি সিনেমার শুটিংয়ে অংশ নিচ্ছি। পরিচালক রাজু স্যারের ‘চাদর’ সিনেমার শুটিং শেষ করে এখানে এসেছি। একদিন পর ‘লাল শাড়ি’ সিনেমার শুটিং করছি। এই সিনেমার মাধ্যমে প্রথমবারের মতো ঢালিউডের জনপ্রিয় অভিনেত্রী অপু বিশ্বাসের সঙ্গে কাজ করছি। আশা করছি নতুন কিছু দেখতে পাবেন দর্শকরা। এ ছাড়া এখন কোনো কিছুই বলতে চাচ্ছি না। অন্যদিকে সিনেমাটি প্রসঙ্গে অপু বিশ্বাস বলেন, আমি শুরুতেই রাষ্ট্রের প্রতি আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানাই। কারণ সরকারি অনুদান দেওয়া হয়েছে বলেই ‘লাল শাড়ি’ সিনেমাটি আমি প্রযোজনা করতে সাহসী হই। এই সিনেমার মাধ্যমে নতুন করে নিজেকে চিনছি। এর আগে যতগুলো সিনেমার সঙ্গে ছিলাম তাতে শুধু অভিনয় করেছি। তবে এবারের সিনেমাটির সঙ্গে আমি ওতপ্রোতভাবে জড়িত। কারণ এটি আমি প্রথমবারের মতো প্রযোজনা করছি। তাই অভিনয়ের সঙ্গে সবকিছুই সামলাতে হচ্ছে। ‘লালা শাড়ি’ সিনেমার কাহিনি ও সংলাপ লিখেছেন তানভীর সিডনি। এতে অভিনয় করেছেন শহীদুজ্জামান সেলিম, সুমিত, দিলরুবা দোয়েল, রাশেদুজ্জামান আপু, শাহেদ আলীসহ অনেকে। উল্লেখ্য, ‘লাল শাড়ি’সিনেমার গল্প আবর্তিত হয়েছে একটি তাঁতপল্লিকে ঘিরে। এতে প্রেম-ভালোবাসা এবং স্থানীয় রাজনীতির বিষয়ও উঠে আসবে। ছবিটি ২০২১-২২ অর্থবছরে সরকারের কাছ থেকে ৬৫ লাখ টাকা অনুদান পেয়েছে। এটি নির্মিত হচ্ছে অপুর প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ‘অপু-জয় চলচ্চিত্র’র ব্যানারে।