December 4, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Monday, October 17th, 2022, 7:34 pm

লিভারপুলের কাছে হারলো সিটি

অনলাইন ডেস্ক :

ফুটবলে গোলরক্ষকের কাজ গোল আটকানো। তবে লিভারপুল গোলরক্ষক এলিসন বেকারের তাতে যেন ঠায় আপত্তি। গোলরক্ষক হয়ে প্রতিপক্ষের গোল আটকানোর পাশাপাশি গোল করা বা করানোতেও যেন সমান পারদর্শী ব্রাজিলিয়ান এই গোলরক্ষক। ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগে চলতি মৌসুমে অজেয় হয়ে ওঠা ম্যানচেস্টার সিটিকে হাররের স্বাদ দিয়েছে লিভারপুল। মোহাম্মদ সালাহর একমাত্র গোলে সিটিজেনদের হারিয়েছে অলরেডরা। নিজ দলের গোলবার সামলিয়ে সালাহর সেই গোলের অ্যাসিস্ট করেছেন অ্যালিসন। গত রোববার রাতে ঘরের মাঠ অ্যানফিল্ডে ম্যানচেস্টার সিটির বিপক্ষে ১-০ গোলের জয় পেয়েছে লিভারপুল। ইয়ুর্গেন ক্লপের দলের কাছে হেরে আসরে প্রথম হারের স্বাদ পেয়েছে বর্তমান লিগ চ্যাম্পিয়ন ম্যানচেস্টার সিটি। সিটিজেনদের বিপক্ষে এই জয়ে তিন ম্যাচ পর প্রিমিয়ার লিগে জয়ের দেখা পেল লিভারপুল। চলতি মৌসুমে এখন পর্যন্ত সিটির বিপক্ষে দুইবারের দেখায় দুইবারই জিতলো লিভারপুল। অ্যানফিল্ডে ম্যাচের শুরু থেকেই আক্রমণাত্মক খেলতে থাকে লিভারপুল। সমানে টুক্কর দিয়েছে পেপ গার্দিওলার সিটিও। ম্যাচের ১৪ মিনিটে লিভারপুলকে এগিয়ে নেওয়ার সুযোগ পেয়েছিলেন মোহাম্মদ সালাহ। তবে সে সুযোগ কাজে লাগাতে পারেননি তিনি। এক মিনিট বাদেই এগিয়ে যাওয়ার প্রথম সুযোগ পেয়েছিলো সিটিজেনরাও। আর্লিং হালান্ডও ব্যর্থ হয়েছেন দলকে এগিয়ে নিতে। ম্যাচের ৩৩ মিনিটে আবার সুযোগ পেয়েছিল সিটি। লিভারপুল ডিফেন্ডার ভার্জিল ভ্যান ডাইককে পার করে গেলেও গোলবারের নিচে দাঁড়ানো অ্যালিসনের সামনে গিয়ে এবারও আটকে যান হালান্ড। ৩৬ মিনিটে আরো একটি বড় সুযোগ নষ্ট করেন সালাহ। ফরোয়ার্ডেদের এমন একের পর এক সুযোগ নষ্ট করার ফলে গোলশূন্য ভাবেই শেষ হয় ম্যাচের প্রথমার্ধ্ব। দ্বিতীয়ার্ধ্বের খেলা শুরুর মিনিট দশেকের মাথাতেই লিভারপুলের জালে বল পাঠিয়ে উৎসবে মেতেছিলেন ফিল ফোডেন। তবে ভিএআরের সাহায্যে সেই গোল বাতিল করেন রেফারি। আক্রমণের শুরুতে ফ্যাবিনহোকে ফাউল করেছিলেন হালান্ড। ম্যাচের ৭৬ মিনিটে আর হতাশ হতে হয়নি লিভারপুলকে। ঘরের মাঠের দর্শকদের উল্লাসে মাতান দলের সবচেয়ে বড় ভরসা সালাহ। এই গোলের জন্য বলের যোগানদাতা অলরেডদের ব্রাজিলিয়ান গোলরক্ষক অ্যালিসন বেকার। প্রতিপক্ষের ফ্রি-কিক থেকে বল ধরে ফরোয়ার্ড লাইনে থাকা সালাহকে উদ্দেশ্য করে দ্রুতই বল বাড়ান অ্যালিসন। মাঝমাঠে সালাহকে ট্যাকল করতে গিয়ে ব্যর্থ হন জোয়াও ক্যানসেলো। বল নিয়ন্ত্রণে নিয়ে অত্যন্য সুনিপুণ ভাবে সিটির গোলরক্ষক এডারসনকে পরাস্ত করেন সালাহ। এই নিয়ে চলতি মৌসুমসহ টানা চার মৌসুমে লিভারপুলের জার্সি গায়ে অন্তত একটি করে গোল বা অ্যাসিস্টের তালিকায় না লেখালো অ্যালিসন। ম্যাচের বাকিটা সময় দুই দলের আর কেউই গোল করতে না পারায় শেষ পর্যন্ত অই ১-০ গোলে জয় নিয়েই মাঠ ছাড়ে ইয়ুর্গেন ক্লপের দল। এই জয়ে ৯ ম্যাচে ১৩ পয়েন্ট নিয়ে লিগ টেবিলের আট নম্বরে উঠেছে লিভারপুল। আর সমান ম্যাচে ২৩ পয়েন্ট নিয়ে দুই নম্বরে ম্যানচেস্টার সিটি।