May 28, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Wednesday, February 9th, 2022, 7:16 pm

শিল্পী সংঘর উন্নয়ন প্রসঙ্গে যা বললেন নাসিম

অনলাইন ডেস্ক :

ছোট পর্দার শিল্পীদের সংগঠন অভিনয় শিল্পী সংঘ। গত ২৮ জানুয়ারি নির্বাচন হয়। এবার নিবার্চনে গত দুবারের সাধারণ সম্পাদক আহসান হাবিব নাসিম সভাপতি নির্বাচিত হয়েছেন। সভাপতি হিসেবে তিনি শপথ নেবেন ১১ ফেব্রুয়ারি। জাতীয় শিল্পকলা একাডেমি চিত্রশালায় বিকেল ৫টায় অনুষ্ঠিত হবে শপথ অনুষ্ঠান। আগামী দিনের অভিনয় শিল্পী সংঘ কেমন হতে যাচ্ছে? কোন বিষয়গুলোকে ফোকাসে রেখে এগিয়ে যেতে চায় নতুন নেতৃত্ব? এসব নিয়ে সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে কথা বলেন নবনির্বাচিত সভাপতি আহসান হাবিব নাসিম। নির্বাচন নিয়ে নাসিম বলেন, ‘আমাদের নির্বাচন অনেক সুন্দর হয়েছে। তাই প্রথমে প্রধান নির্বাচন কমিশনার অভিনেতা খায়রুল আলম সবুজসহ সব অভিনয় শিল্পীকে ধ্যনবাদ। তারা এই করোনার সময় স্বাস্থ্যবিধি মেনে নির্বাচনে অংশগ্রহণ করেছেন। তারপর সাংবাদিক ভাই-বন্ধু, শিল্পকলার লোকজনকে ধন্যবাদ। তাদের সহযোগিতার কারণে এরকম একটা সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন হয়েছে।’ ভবিষ্যতের কর্মপরিকল্পনা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘আমি অভিনয় শিল্পীদের জন্য কাজ করে যেতে চাই। পদ না থাকলেও কাজ করবো। এটা হলো আমার ব্যক্তিগত ভাবনা। যারা বিজয়ী হয়ে এসেছেন তারাও নিশ্চয়ই শিল্পীদের জন্য কিছু করার তাদিগ থেকেই দায়িত্ব নিতে চেয়েছেন। আমরা সবাই মিলে অভিনয় শিল্পী সংঘ ও এর সদস্যদের উন্নয়নে অনেক পরিকল্পনা করছি।’ এই অভিনেতা আরও বলেন, ‘আমরা শপথ নেওয়ার পর প্রথমে একটা সভা করবো। আগে যে কাজগুলো চলমান ছিল সেগুলোর কি অবস্থা দেখবো। সেগুলো শেষ করবো। তারপর আমরা যেহেতু আলদা নির্বাচন করেছি তাই প্রত্যেকের প্রতিশ্রুতি একসঙ্গে নিয়ে বসবো। একটা তালিকা করবো। পাশাপাশি যেসব শিল্পী জয়ী হতে পারেননি তাদেরও কি ইশতেহার ছিল সেগুলো লিখিত আকারে গ্রহণ করবো। সব প্রতিশ্রুতি নিয়ে এগিয়ে যাবো। আমি নির্বাচনে আগে যে কথা দিয়েছি সেই কথা অনুযায়ী কাজের ধারাবাহিকতা রাখতে চাই। প্রথমত দুই ধরনে ওয়েলফেয়ার করতে চাই। একটা জরুরি থাকবে। সেখান থেকে অভিনয় শিল্পীরা অসুস্থ হয়ে পড়লে তাড়াতাড়ি যাতে সেবা নিতে পারেন তার ব্যবস্থা করে দেওয়া হবে। দ্বিতীয়ত ওয়েলফেয়ার করতে চাই যারা অনেকদিন ধরেই অভিনয় করে যাচ্ছেন কিন্তু সেভাবে টাকা-পয়সা নেই তাদের প্রতি মাসে ভাতার ব্যবস্থা যাতে করা যায়। আমরা শিল্পীদের আইনি সেবা দিতেও কাজ করবো। দুজন আইনজীবী নিয়োগ করার কথা ভাবছি। তাছাড়া অভিনয় শিল্পীদের জন্য কর্মশালা, অভিনয় শিল্পী সংঘের সাইটে সবার একটা করে প্রোফাইল করার চেষ্টাও থাকবে। যাতে পরিচালকরা বুঝতে পারেন এই শিল্পীকে নেওয়া দরকার এই চরিত্রে জন্য। আশা করছি একটা একটা করে কাজ আমরা সফলভাবে শেষ করতে পারবো।’