June 15, 2024

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Sunday, October 22nd, 2023, 11:06 am

শ্রীমঙ্গলে পৌরসভার অবৈধ ফুটপাত উচ্ছেদ অভিযান

জেলা প্রতিনিধি, মৌলভীবাজার (শ্রীমঙ্গল):

মৌলভীবাজারের শ্রীমঙ্গলে যানজট নিরসন এবং পথচারীদের নির্বিঘ্নে চলাচলের লক্ষ্যে শ্রীমঙ্গল পৌর এলাকায় বিভিন্ন সড়কে ও বাজারে ফুটপাত দখলমুক্ত রাখতে অভিযান পরিচালনা করেছে পৌর কর্তৃপক্ষ।

শনিবার (২১ অক্টোবর) দুপুরে পৌরসভার মেয়র মো. মহসিন মিয়া মধু’র নির্দেশে অভিযানে নেতৃত্ব দেন শ্রীমঙ্গল পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী মো. জহিরুল ইসলাম।
পৌর এলাকার ভানুগাছ সড়ক, স্টেশন সড়ক, হবিগঞ্জ সড়ক সহ বিভিন্ন সড়ক ও বাজারে অভিযান পরিচালনা করা হয়। এসময় সড়ক ও সড়কের পাশে ফুটপাত দখল করে অবৈধভাবে যেসব ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠেছে সেগুলো উচ্ছেদ করা হয়।
যানজটের কারণ জানতে চেয়ে শ্রীমঙ্গলের সচেতন মহলের কয়েকজনের সাথে কথা বললে তারা জানান যানজটের ম‚ল কারণ হচ্ছে শহরের প্রধান সড়ক গুলির পাশে অপরিকল্পিত ভাবে হোটেল, রেস্তোরাঁ, ব্যাংক, বীমা অফিস গড়ে ওঠা। তারা বলেন যে সকল হোটেল, রেস্তোরাঁ, ব্যাংক-বীমা অফিস গড়ে উঠেছে সেগুলোর নির্দিষ্ট কোন পার্কিং নেই, রেস্তোরাঁ এবং ব্যাংকে আসা কাস্টমারদের গাড়ি পার্কিং করা সড়কের মধ্যে। এতে করে পথচারী ও যান চলাচলে চরম দুর্ভোগ দেখা দেয়। সৃষ্টি হয় দীর্ঘ যানজটের।
তারা আরো বলেন ব্যবসায়ী এবং সাধারণ মানুষ নিজে থেকে সচেতন না হলে পৌর কর্তৃপক্ষ ও প্রশাসনের একার পক্ষে শহরের যানজট নিরসন ও সৌন্দর্য ধরে রাখা কোনভাবেই সম্ভব নয়। তারা বলেন আমরা দেখেছি পৌর কর্তৃপক্ষ এবং প্রশাসন অভিযান পরিচালনা করে চলে যাওয়ার পর আবারো কিছুসংখ্যক অসাধু ব্যবসায়ী ফুটপাত ও সড়কের পাশে বিভিন্ন পণ্যের পসরা নিয়ে বসে। যে সকল ব্যবসায়ী নিষেধ অমান্য করেন সেই অসাধু ব্যবসায়ীদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণের দাবী জানান তারা।
এ বিষয়ে পৌরসভার নির্বাহী প্রকৌশলী মো. জহিরুল ইসলাম বলেন আমরা মেয়র মহোদয়ের নির্দেশে বারবার অভিযান পরিচালনা করে ব্যবসায়ীদের অনুরোধ জানিয়েছি ফুটপাত এবং রাস্তা দখল করে ব্যবসা না করার জন্য। তিনি বলেন শ্রীমঙ্গল একটি পর্যটন সমৃদ্ধ এলাকা। এছাড়া শ্রীমঙ্গলে দেশ-বিদেশ থেকে প্রতিদিন বহু মানুষের আগমন ঘটে এই শহরে। পৌরসভার পক্ষ থেকে আমরা চেষ্টা করি পর্যটক সহ সাধারণ মানুষ যেন নির্দ্বিধায় চলাফেরা করতে পারে। তবে কিছু ব্যবসায়ী আছে তারা নিষেধ অমান্য করে বারবার ফুটপাত এবং রাস্তা দখল করে পণ্যের পসরা বসিয়ে ব্যবসা করেন। তিনি আরো বলেন পুনরায় যদি এর ব্যত্যয় ঘটে তাহলে আমরা আইনগত ব্যবস্থা নেব।