October 3, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Sunday, August 21st, 2022, 7:25 pm

সমালোচকদের মন জয় করল ‘হাউস অফ দ্য ড্রাগন’

অনলাইন ডেস্ক :

বহুল প্রত্যাশিত ‘গেম অফ থ্রোনস’ এর প্রিক্যুয়েল ‘হাউস অফ দ্য ড্রাগন’ শুক্রবার অনেক টেলিভিশন সমালোচকদের কাছ থেকে ভালো পর্যালোচনা পেয়েছে। তবে এখনও অন্যান্যের কাছে প্রমাণ করার জন্য অনেক কিছু রয়েছে সিরিজটির, এমনটাই ভাবছেন পর্যালোচকরা। তিন বছর আগে বিশ্বজুড়ে প্রশংসিত এইচবিও সিরিজ ‘গেম অফ থ্রোনস’ একটি বিতর্কিত সমাপ্তির মাধ্যমে শেষ হয়েছিল যা বিশ্বব্যাপী এর দর্শক ও অনুরাগীদের বেশ হতাশ করেছিল। তবে আট বছর হাসিয়ে কাঁদিয়ে, রোমাঞ্চিত করে সারা বিশ্বের অগণিত ভক্তদের অকুণ্ঠ প্রশংসা আদায় করে নিয়েছে ‘গেম অফ থ্রোনস’। এবার হাউস টারগারিয়েনের মধ্যে রক্তক্ষয়ী গৃহযুদ্ধকে কেন্দ্র করে নির্মিত নতুন এই ফ্র্যাঞ্চাইজি দর্শকদের পুনরায় ফিরিয়ে এনেছে জর্জ আর আর মার্টিনের ফ্যান্টাসি জগতে। ‘হাউস অফ দ্য ড্রাগন’-যা রোববার এইচবিও ম্যাক্সে পৌঁছেছে, এখন পর্যন্ত রটেন টমেটোতে ৭৬ শতাংশ ইতিবাচক রেটিং পেয়েছে এবং ১৬৪ টি পর্যালোচনার মধ্যে ১২৪ টি প্রশংসামূলক রিভিউ এসেছে নতুন এই সিরিজটিকে সাধুবাদ জানিয়ে। সিরিজটিকে নিয়ে সবচেয়ে চাপা প্রশ্ন অবশ্যই এটি ছিলো যে, ‘হাউস অফ দ্য ড্রাগন’ কি ভাল হয়েছে? সমালোচকদের আনন্দের সাথে উত্তর, হ্যা। এটি খুবই ভালো ‘একটি মহাকাব্য,। যেটিতে ‘গেম অফ থ্রোনস’ এর মতো প্রচুর লড়াই, প্রচুর রক্ত, বর্বরতা, গোলকধাঁধা, রাজনৈতিক চক্রান্ত এবং অনেক ড্রাগন রয়েছে! সবই আছে এই সিরিজে। তবে প্রশংসার সাথে সাথে কিছু দ্বিধান্বিত পর্যালোচনাও রয়েছে সিরিজটি ঘিরে। লস অ্যাঞ্জেলেস টাইমস-এর লোরেন আলি বলেছেন, ‘মুলের মহিমা, ক্ষমতা পুনরুদ্ধার করা। ’এন্টারটেইনমেন্ট উইকলি-এর ড্যারেন ফ্রানিচ সিরিজের শুরুর দৃশ্যটিকে ‘সম্ভাব্যতম অভিযোজন’ হিসেবে আখ্যায়িত করেছেন। সিএনএন-এর ব্রায়ান লোরি প্রিক্যুয়েলটিকে ‘আগের সিংহাসনের চেয়ে কম আসক্তিমূলক খেলা’ হিসাবে দেখছেন এবং বলেছেন যে এটিও ‘খারাপ নয়। ’ তিনি আরো বলেন, ‘এখানে প্রচুর ড্রাগন আছে। তবে সেটা পূর্বের চরিত্রগুলোর মতো উন্নতি করতে পারেনি। ’এই প্রিক্যুয়েলে প্রিন্সেস রেনাইরা টারগারিয়েন এবং তাঁর ভাই এগন টারগারিয়েনের মধ্যে ‘ড্যান্স অফ দ্য ড্রাগনস’ নামে পরিচিত একটি গৃহযুদ্ধের কাহিনি দেখানো হবে। তাদের পিতা ভিসারিস এল-এর মৃত্যুর পরে সিংহাসনের দখল নিয়ে এই গৃহযুদ্ধ ঘটে। সেভেন কিংডমের অন্তর্ভুক্ত ‘দ্য ডুম অফ ভ্যালেরিয়া’ থেকে পালিয়ে টারগারিয়ানরা ড্রাগনস্টোনে নিজেদের প্রাসাদ তৈরি করেন। প্রায় ৩০০ বছর তাঁরা সে ভাবেই কাটায়। পরে এগন টারগারিয়ান এবং তাঁর বোনের নেতৃত্বে এদের বিখ্যাত ড্রাগনের সাহায্যে সেভেন কিংডমকে দখল করে টারগারিয়ানরা। জর্জ আর আর মার্টিনের লেখা ‘ফায়ার অ্যান্ড ব্লাড’ এর উপর ভিত্তি করে সিরিজটি তৈরি করা হয়েছে। জর্জ আর আর মার্টিন নিজে এই সিরিজের অন্যতম প্রযোজক। রামিন ডিজাওয়াদি, যিনি গেম অফ থ্রোনস-এর মিউজিক কম্পোজ করেছিলেন, এই সিরিজেও সঙ্গীতের দায়িত্ব তাঁকেই দেওয়া হয়েছে। রোববার (২১ আগষ্ট) সিরিজের প্রথম পর্ব এইচবিও চ্যানেলে প্রচারিত হয়। সূত্র : হিন্দুস্তান টাইমস