December 1, 2021

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Monday, October 4th, 2021, 7:05 pm

সালাহর গোল ৫০-৬০ বছর পরেও মানুষ মনে রাখবে

অনলাইন ডেস্ক :

ম্যানচেস্টার সিটির বিপক্ষে মোহামেদ সালাহর অসাধারণ গোলের প্রশংসায় পঞ্চমুখ লিভারপুল কোচ ইয়ুর্গেন ক্লপ। তার মতে, ‘বিশ্বমানের’ গোলটি নিয়ে বছরের পর বছর ধরে কথা বলবে মানুষ। অ্যানফিল্ডে রোববার প্রিমিয়ার লিগে রোমাঞ্চকর ম্যাচটি ২-২ গোলে ড্র হয়। সালাহর পাস থেকে লিভারপুলকে এগিয়ে নেন সাদিও মানে। ম্যানচেস্টার সিটি সেটি শোধ দেওয়ার পর লিড পুনরুদ্ধার করেন সালাহ নিজেই। ডি-বক্সের বাইরে ডান দিকে বল পান সালাহ। তাকে ঘিরে রেখেছিল প্রতিপক্ষের তিন খেলোয়াড়। জোয়াও কানসেলোর বাধা এড়িয়ে এগিয়ে যান তিনি। বলের দখল নিতে এসে ভূপাতিত হন বের্নার্দো সিলভা। এরপর চোখধাঁধানো ড্রিবলিংয়ে এমেরিক লাপোর্তকে পেছনে ফেলে ডান পায়ের শটে ঠিকানা খুঁজে নেন মিশরের ফরোয়ার্ড। ম্যাচের পর ক্লপ বলেন, ২৯ বছর বয়সী এই ফুটবলারের গোলটি অর্ধ শতাব্দী পরও লোকজন মনে রাখবে। “শুধুমাত্র বিশ্বের সেরা খেলোয়াড়রাই এরকম গোল করে থাকে। প্রথমে সে বলের নিয়ন্ত্রণ নিল, প্রথম চ্যালেঞ্জ জিতল, এরপর সামনে এগিয়ে ডান পায়ের শটে যেভাবে গোল করল, এক কথায় অনবদ্য।” “এই ক্লাব কখনোই কোনো কিছু ভোলে না। মানুষ এই গোলটা নিয়ে বছরের পর বছর ধরে কথা বলবে। ৫০-৬০ বছর পরেও এই গোলটা সবাই মনে রাখবে।”লিগে সাত ম্যাচে এটি সালাহর ষষ্ঠ গোল। সিটির বিপক্ষে অমন গোলের জন্য তার আরও বেশি কৃতিত্ব প্রাপ্য বলে মনে করেন কোচ। “ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো বা লিওনেল মেসি এই ধরনের গোল করলে সবাই সেটাকে বিশ্বমানের বলে। সেও (সালাহ) বিশ্বের সেরা খেলোয়াড়দের একজন।” ম্যাচ শেষে নিজের গোলটি নিয়ে কথা বললেন সালাহও। তবে ম্যাচটি জিততে না পারার আক্ষেপ ঝরল তার কণ্ঠে। “গোলটা আমার দেখতে হবে। আমার এটা মনে আছে। যদি ম্যাচটা জিততে পারতাম তাহলে এটা আরও বিশেষ কিছু হতো। আমার কাছে এটা ভালো একটি গোল, এর বেশি কিছু বলার নেই।”