July 18, 2024

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Sunday, December 24th, 2023, 8:39 pm

সুশিক্ষিত প্রজন্মের জন্য মানসম্মত শিক্ষা গুরুত্বপূর্ণ: সৌদি রাষ্ট্রদূত

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্ধারিত ডিজিটাল বাংলাদেশের লক্ষ্য অর্জনে মানসম্মত শিক্ষা এবং তরুণ প্রজন্মের সম্পৃক্ততার ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন বাংলাদেশে সৌদি আরবের রাষ্ট্রদূত এসা বিন ইউসুফ আল দুহাইলান।

রবিবার (২৪ ডিসেম্বর) সৌদি দূতাবাসে এক অনুষ্ঠানে তিনি বলেন, সুশিক্ষিত প্রজন্মের জন্য শিক্ষার মানোন্নয়ন খুবই গুরুত্বপূর্ণ।

হারনেট ফাউন্ডেশন বাংলাদেশে রয়্যাল সৌদি আরব (কেএসএ) দূতাবাসে ‘বাংলাদেশ ডিসাইডস: দ্য ইয়ুথ স্পিকস’র (বিডিওয়াইএস) পঞ্চম ও সমাপনী পর্ব উন্মোচন করেছে।

বিডিওয়াইএস অনুষ্ঠানটি হারনেট টিভির প্রতিষ্ঠাতা সিইও ও এমডি আলিশা প্রধানের নিজস্ব পরিকল্পনা ও ধারণা থেকে আনা হয়েছে।

রাষ্ট্রদূত বলেন, সৌদি আরবের বাদশাহের উপহার হিসেবে বাংলাদেশে একটি আরবি ভাষার ইনস্টিটিউশন নির্মাণ করা হবে।

তিনি কোভিড-১৯ মহামারির সময় কেএসএকে চিকিৎসা সামগ্রী সরবরাহসহ বাংলাদেশের সহায়তার কথা স্মরণ করেন।

তিনি বলেন, ‘আমাদের কোনো কর্তৃপক্ষের কাছে যেতে হবে না। আমাদের কাছে শুধু আমাদের মোবাইল ফোন এবং প্রাসঙ্গিক অ্যাপ আছে। আপনারা মোবাইল অ্যাপের মাধ্যমে সবকিছু করতে পারেন। এটি সবকিছু সহজতর করতে পারে।’

রাষ্ট্রদূত বলেন, তারা শুধু ডিজিটালাইজেশনের মাধ্যমে ভিসা দানের সময় ৪৫ দিন থেকে দুই মিনিটে নামিয়ে এনেছে। ‘এটি সৌদি সরকারের একটি চমৎকার অর্জন।’

তিনি বলেন, বাংলাদেশ থেকে প্রতিদিন ৫ হাজারের বেশি ভিসা দেওয়া হচ্ছে।

রাষ্ট্রদূত বলেন, কেএসএতে ২৮ মিলিয়ন বাংলাদেশি বসবাস করছে। ‘আমরা আমাদের কেএসএ-র উন্নয়ন ও সমৃদ্ধিতে তাদের অংশগ্রহণের প্রশংসা করি।’

তিনি বলেন, পর্যটনও আরেকটি ক্ষেত্র যেখানে একসঙ্গে কাজ করার সুযোগ রয়েছে। ‘আপনাদের একটি সুন্দর দেশ আছে, কিন্তু আপনাদেরকে নিজেদের জনগণকে শিক্ষিত করতে হবে। এবং অবকাঠামোগত উন্নয়নে আপনাদের আরেকটু মনোযোগ দেওয়া দরকার।’

বাংলাদেশে ইইউ দূতাবাসের সহ-অর্থায়ন ও সহায়তায় এই অনুষ্ঠানটি বাংলাদেশের তরুণদের ক্ষমতায়নের প্রতি গুরুত্বারোপ করে।

বিডিওয়াইএস, হারনেট ফাউন্ডেশন কর্তৃক আয়োজিত একটি প্ল্যাটফর্ম; যার লক্ষ্য বাংলাদেশের তরুণদের মুখোমুখি হওয়া বহুমুখী পরিচয় চ্যালেঞ্জগুলো অন্বেষণ ও মোকাবিলা করা।

অনুষ্ঠানটি ১০টি স্বনামধন্য বিশ্ববিদ্যালয়ের সবচেয়ে উজ্জ্বল ও প্রতিভাবান তরুণদের একত্র করেছে। যেখানে তারা তাদের অন্তর্দৃষ্টি, আকাঙ্ক্ষা ও বাংলাদেশের উন্নয়নের চ্যালেঞ্জগুলোর সামনে নতুন ও উদ্ভাবনী সমাধানগুলো আলোচনা করতে পারে।

বাংলাদেশের সৌদি আরব দূতাবাস ও ফরাসি দূতাবাসের সহযোগিতায় এবং হারনেট টিভি, আইআরএফ সংবাদ সংস্থা, ইউএনবি, সময় টিভি, বাংলাদেশ প্রতিদিন, কাজী অ্যান্ড কাজী টি, হারনেট ব্লিসমাইন্ড, জোন্টা ইন্টারন্যাশনাল, ব্লু প্ল্যানেট গ্রুপ, গোল্ড স্যান্ডস হোটেল অ্যান্ড রিসোর্টস তারা এই গুরুত্বপূর্ণ আয়োজনের সঙ্গে সহযোগী হিসেবে সংযুক্ত হয়েছে।

সংলাপে নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ছয়জন শিক্ষার্থী অংশ নিয়েছিল।

এই পর্বের বিষয়বস্তু হলো-‘গ্লাবাল ডায়নামিকস: ফরেন এইড, ন্যাশনাল সোভরেনটি অ্যান্ড দ্য রোলস অব পাবলিক অ্যান্ড প্রাইভেট সেক্টরস ইন ডেভেলপমেন্ট’।

এতে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস চ্যান্সেলর (ভিসি) প্রফেসর আতিকুল ইসলাম, অনুষ্ঠানটিতে সভাপতিত্ব করবেন সৌদি রাষ্ট্রদূত এইচ.ই এসা ইউসুফ এসা আল দুহাইল।

অনুষ্ঠানে ছিলেন হারনেট গ্রুপের উপদেষ্টা মনির প্রধান; হারনেট টিভি চেয়ারপারসন হোসনা প্রধান; জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের (জবি) উপাচার্য ড. সাদেকা হালিম; ইউরোপীয় ইউনিয়নের (ইইউ) ডেপুটি হেড অব ডেলিগেশন ড. বার্ন্ড স্প্যানিয়ার; শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (সাস্ট) নৃবিজ্ঞান বিভাগের অধ্যাপক একেএম মাজহারুল ইসলাম; এফবিসিসিআই সভাপতি মাহবুবুল আলম; বিজিএমইএ সভাপতি ফারুক হাসান; প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় এনএসডিএ’র প্রধান সমন্বয়কারী আখতার হোসেন; ইউনিলিভার বাংলাদেশ লিমিটেডের চেয়ারম্যান ও এমডি জাভেদ আক্তার; ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) মেয়র আতিকুল ইসলাম; বিবি প্রোডাকশনের প্রতিষ্ঠাতা বিবি রাসেল; লা মেরিডিয়ান ঢাকার পরিচালক তাসনুভা ইসলাম; এসিআই কনজ্যুমার ব্র্যান্ডের বিজনেস ডিরেক্টর মোহাম্মদ কামরুল হাসান মানসিক স্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের মনোরোগ বিশেষজ্ঞ অধ্যাপক মেখলা সরকার, স্যার জন উইলসন স্কুলের অধ্যক্ষ মো সাবরিনা শহীদ; সামিট গ্রুপের পরিচালক আজিজা আজিজ খান এবং আরও প্রভাবশালী ব্যক্তিবর্গ।

তারা দেশের ভবিষ্যত গঠনে তরুণদের ভূমিকা সম্পর্কে তাদের দৃষ্টিভঙ্গি শেয়ার করেছেন।

—–ইউএনবি