February 6, 2023

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Tuesday, December 27th, 2022, 7:13 pm

সেঞ্চুরিতে বাবরের সমালোচনার জবাব

অনলাইন ডেস্ক :

সমালোচনার জবাবটা কী দারুণভাবেই না দিলেন বাবর আজম। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ফাইনালে ইংল্যান্ডের কাছে হার। এরপর সেই ইংল্যান্ডের বিপক্ষেই নিজেদের ঘরের মাটিতে তিন ম্যাচের টেস্ট সিরিজে হোয়াইটওয়াশ হয় পাকিস্তান। দলের এই ব্যর্থতার জন্য কড়া সমালোচনার মুখে পড়েছিলেন অধিনায়ক বাবর আজম। তার অধিনায়কত্ব কেড়ে নেওয়ার জোরদার দাবিও উঠেছিল। বাবর আজম নিন্দুকদের সেই সমালোচনার জবাবটা দিলেন ব্যাট হাতেই, অনবদ্য এক সেঞ্চুরি করে। গত সোমবার শুরু হয়েছে পাকিস্তান ও নিউজিল্যান্ডের মধ্যকার দুই ম্যাচ সিরিজের প্রথম টেস্ট। করাচিতে টেস্টের প্রথম দিনেই সেঞ্চুরি তুলে নিয়েছেন পাকিস্তান অধিনায়ক। টেস্টে যেটি তার নবম সেঞ্চুরি। তবে তিন অঙ্কের ম্যাজিক ফিগারে পৌঁছেই থামেননি বর্তমানের সেরা ব্যাটসম্যান। এরইমধ্যে ক্যারিয়ারে দ্বিতীয় বারের মতো ছুঁয়ে ফেলেছেন ১৫০ রানের মাইলফলক। ১৫০ পেরিয়ে তিনি এখন হাঁটছেন ক্যারিয়ারের প্রথম ‘ডাবল’ সেঞ্চুরির দিকে। প্রথম দিন শেষে তিনি অপরাজিত আছেন ১৬১ রানে। ১৫টি চার ও একটি ছক্কায় সাজানো ২৭৭ বলে ১৬১ রানের ইনিংস, বাবরের এই ইনিংসটিই বলে দিচ্ছে করাচি টেস্টের প্রথম দিনটি নিজেদের বানিয়ে ফেলেছে স্বাগতিক পাকিস্তান। তাতে অধিনায়ক বাবরের ভূমিকাই মুখ্য। তবে সাবেক অধিনায়ক, উইকেটকিপার ও ব্যাটসম্যান সরফরাজ আহমেদের ভূমিকাও কম নয়। তিনিও খেলেছেন ৮৬ রানের আলো ঝলমলে এক ইনিংস। টস জিতে ব্যাটিংয়ে নেমে ১৯ রানের মধ্যেই দুই উইকেট হারিয়ে ফেলে পাকিস্তান। সফরকারী নিউজিল্যান্ডের বোলাররা তখন ক্রিজে আগুন ঝরাচ্ছেন। এই অবস্থায় দলের হাল ধরতে ব্যাট হাতে নামেন বাবর আজম। প্রথমেই মনোযোগ দেন ইনিংস মেরামতের দিকে। কিন্তু তিনি উইকেটে থিতু হওয়ার আগেই আবার পাকিস্তানি শিবিরে ধাক্কা। দলকে ৪৮ রানে রেখে ফিরে যান ২৪ রান করা ইমাম-উল-হকও। ৪৮ রানে ৩ উইকেট হারানোর পর বাবর সাউদ শাকিলকে সঙ্গে নিয়ে নতুন করে ইনিংস মেরামতের চেষ্টায় নামেন। এ যাত্রা অনেকটা সফলও হন তারা। দুজনে মিলে গড়েন ৬২ রানের জুটি। কিন্তু এই জুটিও ভেঙে দেন টিম সাউদি। ফিরিয়ে দেন শাকিলকে (২২)। এরপর সরফরাজের সঙ্গে জুটি বাঁধেন বাবর। একটু আগে যারা আগ্রাসি ভূমিকায় ছিল, নিউজিল্যান্ডের সেই বোলারদের ওপর দিয়ে পালটা শাসন চালান বাবর-সরফরাজ। দুজনে মিলে পঞ্চম উইকেটে গড়েন ১৯৬ রানের জুটি। ৪ উইকেটে ১১০ থেকে পাকিস্তান পৌঁঁছে যায় ৩০৬ রানে। দিনটা পাকিস্তানের জন্য আরো ভালো হতো যদি শেষ দিকে আউট না হতেন সরফরাজ। দিনের শেষ মুহূর্তে আইজাজ প্যাটেলের শিকার হন তিনি। তার আগে খেলেছেন ৯ চারের সহায়তায় ৮৬ রানের দারুণ এক ইনিংস। সরফরাজের বিদায়ের পর আগা সালমানকে নিয়ে দিনের বাকি সময়টুকু কাটিয়ে দিয়েছেন বাবর আজম। তিনি উইকেটে আছেন বলে বড় সংগ্রহের ভরসা পাচ্ছে পাকিস্তান।