January 29, 2023

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Tuesday, December 27th, 2022, 10:47 am

কুলাউড়ায় ২৫০০ শিক্ষার্থীর অংশগ্রহণে মেধাবৃত্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত

জেলা প্রতিনিধি, মৌলভীবাজার:

মৌলভীবাজারের কুলাউড়া উপজেলার অন্যতম শিক্ষা প্রতিষ্ঠান শাহজালাল আইডিয়াল ইন্টারন্যাশনাল স্কুল এন্ড কলেজের ১০ম মেধাবৃত্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ২৭ ডিসেম্বর মঙ্গলবার কুলাউড়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ে কেন্দ্রে দুই ধাপে উপজেলার ২৪৪টি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের আড়াই হাজার শিক্ষার্থী এ মেধাবৃত্তি পরীক্ষায় অংশ নেয়।

মেধাবৃত্তি পরিচালনা কমিটি সূত্রে জানা যায়, শাহজালাল আইডিয়াল ইন্টারন্যাশনাল স্কুল এন্ড কলেজের অধ্যক্ষ ও কুলাউড়া উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান একেএম সফি আহমদ সলমানের পৃষ্ঠপোষকতায় গত ১০ বছর ধরে এ মেধাবৃত্তি পরীক্ষার আয়োজন করা হয়। ১ম ধাপে মঙ্গলবার সকাল ১০টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত উপজেলার ১৯৩টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও ১৭টি কিন্ডার গার্টেনের ২য় থেকে ৫ম শ্রেণি পর্যন্ত ১ হাজার ৭৭৫ জন শিক্ষার্থী এবং ২য় ধাপে দুপুর ২টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত ৩৪টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৬ষ্ঠ থেকে ৯ম শ্রেণি পর্যন্ত ৭২৫ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় অংশ নেন।

পরীক্ষা নিয়ন্ত্রকের দায়িত্ব পালন করেন কুলাউড়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো: আব্দুল মতিন। সার্বিক সহযোগিতায় ছিলেন শাহজালাল আইডিয়াল ইন্টারন্যাশনাল স্কুল এন্ড কলেজের উপাধ্যক্ষ মো: জহিরুল ইসলাম।

পরীক্ষা পরিদর্শন করেন উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান অধ্যক্ষ এ কে এম সফি আহমদ সলমান, সহকারি উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মোঃ মামুনুর রহমান, প্রবীণ সাংবাদিক সুশীল সেন গুপ্ত, সাবেক পৌর কাউন্সিলর ইকবাল আহমদ শামীম, মৌলভীবাজার জেলা সাংবাদিক ফোরামের সাধারন সম্পাদক এম. মছব্বির আলী, কুলাউড়া বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের সহকারী প্রধান শিক্ষক মোঃ জসিম উদ্দিন, পৌর কাউন্সিলর সাইফুর রশীদ সুমন, শিক্ষক খায়রুল আলম কয়ছর, কালের কণ্ঠ প্রতিনিধি মাহফুজ শাকিল, উপজেলা কৃষকলীগের সাধারণ সম্পাদক ফুয়াদ আলম চৌধুরী, সাপ্তাহিক কুলাউড়ার ডাক পত্রিকার স্টাফ রিপোর্টার রাসেল আহমদ প্রমুখ।

মেধাবৃত্তি পরীক্ষার পৃষ্ঠপোষক ও উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান এ কে এম সফি আহমদ সলমান বলেন, উপজেলার বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের কোমলমতি শিক্ষার্থীদের মেধার বিকাশে ধারাবাহিকভাবে এ মেধাবৃত্তি আয়োজন করা হয়। ভবিষ্যতেও এ ধারবাহিকতা অব্যাহত থাকবে।