October 2, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Wednesday, September 14th, 2022, 5:52 pm

বর্জ্যরে টেকসই সমাধানে জিওসাইকেল ও সিলেট সিটি করপোরেশন চুক্তি

জেলা প্রতিনিধি, সিলেট :
জিওসাইকেল এবং সিলেট সিটি করপোরেশন সিলেট সিটির বর্জ্যরে টেকসই সমাধানের লক্ষ্যে একটি সমঝোতা চুক্তি সই করেছে। ১৪ সেপ্টেম্বর বুধবার নগরীর একটি অভিজাত হোটেলে এই চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়।
এই চুক্তির অধীনে সিলেট সিটি করপোরেশনের সলিড বর্জ্য পরীক্ষামূলকভাবে ব্যবস্থাপনা করবে জিওসাইকেল। সফল পরীক্ষার পর উভয় পক্ষ দীর্ঘমেয়াদী চুক্তি করবে।
আজ সিলেটের একটি হোটেলে চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে সিলেট সিটি করপোরেশনের মাননীয় মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী এবং লাফার্জহোলসিম বাংলাদেশের চীফ করপোরেট অ্যাফেয়ার্স অফিসার ও মানবসম্পদ পরিচাল আসিফ ভূইয়া নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে চুক্তিতে সই করেন। এসময় সিলেট সিটি করপোরেশনের প্রধান নির্বাহি কর্মকর্তা (অতিরিক্ত সচিব) বিধায়ক রায় চৌধুরী, প্রধান প্রকৌশলী নূর আজিজুর রহমান, লাফার্জহোলসিম বাংলাদেশের হেড অব জিওসাইকেল কৌশিক মুখার্জি, হেড অব ইন্ডাস্ট্রিয়াল অপারেশনস ও সুরমা প্ল্যান্ট ম্যানেজার হারপাল সিং সহ উভয় প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে আসিফ ভূইয়া বলেন, “জিওসাইকেল লাফার্জহোলসিম বাংলাদেশের বর্জ্য ব্যবস্থাপনা ইউনিট। পরিবেশ অধিদপ্তর কর্তৃক অনুমোদিত এটাই বাংলাদেশের একমাত্র টেকসই বর্জ্য ব্যবস্থাপনা পদ্ধতি। বর্জ্যকে নিয়ে পুনরায় চিন্তা করে উদ্ভাবনী উপায়ে তা ব্যবস্থাপনা করাই জিওসাইকেলের উদ্দেশ্য। সারাবিশে^র ৫০ টি দেশে জিওসাইকেলের অপারেশনস রয়েছে, যা বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় বিশে^ আমাদের নেতৃস্থান দখলে সাহায্য করেছে।”
কৌশিক মুখার্জি চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে জিওসাইকেল কীভাবে বর্জ্য ব্যবস্থাপনা করে এবং কীভাবে এই বর্জ্য ধ্বংসে সিমেন্ট কিল্ন ব্যবহার করা হয় তা তুলে ধরেন। তিনি বলেন, “সিলেট সিটি করপোরেশন এর সাথে চুক্তি সই করতে পেরে আমরা আনন্দিত, এবং বর্জ্য ব্যবস্থাপনা ইস্যুতে তাদের সহযোগিতা করতে আমরা আগ্রহী। আমরা জিওসাইকেলে প্রমানিত কো-প্রসেসিং প্রযুক্তির সাহায্যে বিদ্যমান সিমেন্ট উৎপাদন সুবিধার মধ্যেই টেকসই উপায়ে বর্জ্য ধ্বংস করে থাকি। একটি বর্জ্যবিহীন ভবিষ্যত তৈরির লক্ষেই জিওসাইকেল কাজ করছে।”
আরিফুল হক চৌধুরী চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে আনন্দ প্রকাশ করে বলেন, “আমাদের লক্ষ্য একটি পরিচ্ছন্ন সিলেট নগরী উপহার দেয়া এবং আমি আশা করি আজকের এই উদ্যোগে তা গতি পাবে। পরীক্ষামূলক বর্জ্য ব্যবস্থাপনার এই সময়টাতে জিওসাইকেল আমাদের পেশাদার কর্মীদের প্রশিক্ষন দিবেন। আমরা এরপর আরও অতিরিক্ত কী কী সেবা তাদের থেকে নিতে পারি সেগুলো নিয়ে কাজ করবো।”
জিওসাইকেল সিলেট সিটি করপোরেশনের সলিড বর্জ্যগুলো লাফার্জহোলসিম বাংলাদেশের ছাতকের সুরমা প্ল্যান্টে ধ্বংস করবে বলে অনুষ্ঠানে জানানো হয়।