November 26, 2022

The New Nation | Bangla Version

Bangladesh’s oldest English daily newspaper bangla online version

Wednesday, November 16th, 2022, 3:23 pm

রংপুরে যৌকুকের জন্য স্ত্রীকে হত্যা; স্বামীর ফাঁসির আদেশ

নিজস্ব প্রতিবেদক, রংপুর :

রংপুর নগরীর ধাপ আটিয়াটারি মহল্লায় এক লাখ টাকা যৌতুক না দেয়ায় স্ত্রী সুলতানা পারভীনকে শ্বাস রোধ করে নৃশংস ভাবে হত্যার অভিযোগে তার স্বামী আসামী সোহেল রানা ওরফে শরীফুলকে মৃত্যুদন্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।
বুধবার দুপুর পৌনে বারটায় রংপুরের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনাল ১ এর বিচবারক মোস্তফা কামাল এ রায় প্রদান করেন। রায় ঘোষনার সময় আসামী আদালতে উপস্থিত ছিলো। পরে তাকে কঠোর পুলিশী পাহারায় সরাসরি রংপুর কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠানো হয়।
মামলার বিবরনে জানা গেছে ২০১৫ সালে রংপুর নগরীর ধাপ আটিয়াটারি এলাকার অহেদ আলীর ছেলে সোহেল রানা ওরফে শরিফুলের সাথে একই এলাকার সুজামিয়ার মেয়ে সুলতানা পারভীনের প্রেমের সম্পর্ক থাকায় দুই পরিবারের সম্মতিতে বিয়ে হয়। দু বছর সংসার করা হলে স্বামী সোহেল রানা প্রায়শই তার স্ত্রী সুলতানা পারভীনের কাছে এক লাখ টাকা যৌতুক দাবি করে। বাবা হতদরিদ্র হওয়ায় টাকা দিতে পাারবেনা জানালে তাকে প্রায়শই নির্যাতন করতো।২০১৭ সালের ২৮ জুন তারিখে দিনের বেলা যৌতুকের দাবিতে আবারও মারধর করে স্বামী সোহেল রানা। পরে গভীর রাতে স্ত্রীকে ঘুম থেকে ডেকে তুলে বাইরে নিয়ে এসে শ্বাস রোধ করে স্ত্রী সুলতানা পারভীনকে নৃশংস ভাবে হত্যা করে লাশ বাড়ির অদুরে একটি পাট ক্ষেতে ফেলে চলে যায়। এ ঘটনায় নিহত সুলতানা পারভীনের বাবা সুজা মিয়া বাদী হয়ে রংপুর মেট্রোপলিটান কোতয়ালী থানায় হত্যা মামলা দায়ের করে।পুলিশ আসামীকে গ্রেফতার করলে সে আদালতে ম্যাজিষ্ট্রেটের কাছে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমুল জবানবন্দি প্রদান করে। তদন্ত শেষে এসআই মহিবুল ইসলাম আসামী সোহেল রানার বিরুদ্ধে আদালতে চার্জসীট দাখিল করে। মামলায় ১৫ জন সাক্ষীর সাক্ষ্য ও জেরা শেষে আসামী সোহেল রানাকে দোষি সাব্যস্ত করে মৃত্যু না হওয়া পর্যন্ত ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যু দন্ডের আদেশ দেন। সেই সাথে এক লাখ টাকা জরিমানা করা হয়।
বাদী পক্ষে মামলা পরিচালনাকারী আইনজিবী রফিক হাসনাইন রায়ে সস্তোষ প্রকাশ করে দ্রুত রায় কার্যকরার দাবি জানান। অন্যদিকে নিহত সুলতানা পারভীনের বাবা সুজা মিয়াও রায়ে সস্তোষ প্রকাশ করে যত দ্রুত সম্ভব ফাঁসি কার্যকর করার দাবি জানান।##